আবরার রাহাতের মৃত্যু: সাক্ষ্যগ্রহণ ফের পেছালো


Published: 2021-01-26 20:39:08 BdST, Updated: 2021-03-08 02:21:32 BdST

লাইভ প্রতিবেদকঃ কিশোর আলোর অনুষ্ঠানে ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্র নাইমুল আবরার রাহাতের মৃত্যুর ঘটনায় করা মামলায় প্রথম আলোর সম্পাদক মতিউর রহমানসহ নয়জনের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ আবার পিছিয়েছে।

মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ মতিউর রহমানের পক্ষে সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে আদালত ১২ এপ্রিল দিন রাখে বলে রাষ্ট্রপক্ষের অন্যতম আইনজীবী তাপস পাল জানান।

মতিউর রহমানের ক্ষেত্রে মামলাটির কার‌্যক্রমে হাই কোর্ট থেকে ছয় মাসের স্থগিতাদেশ থাকায় তার আইনজীবী সাক্ষ্যগ্রহণের জন্য সময় চান। একই কারণে ১৪ ডিসেম্বর মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ পিছিয়ে ২৬ জানুয়ারি দিন রেখেছিলেন বিচারক।

২০১৯ সালের ১ নভেম্বর মোহাম্মদপুরে ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজ ক্যাম্পাসে এক অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয় আবরার। মহাখালীর ইউনিভার্সেল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ওই অনুষ্ঠানের আয়োজক ছিল প্রথম আলোর কিশোর সাময়িকী কিশোর আলো। প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমান কিশোর আলোরও প্রকাশক, আর কিশোর আলোর সম্পাদক হলেন আনিসুল হক।

এ ঘটনায় ২০১৯ সালের ৬ নভেম্বর আবরারের বাবা মো. মুজিবুর রহমান প্রথম আলো সম্পাদকসহ অজ্ঞাত কয়েকজনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেন। ২০২০ সালের ১৬ জানুয়ারি ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে প্রথম আলো সম্পাদকসহ ১০ জনকে অভিযুক্ত করে প্রতিবেদন জমা দেয় পুলিশ।

মতিউর রহমার ছাড়া মামলার অপর আসামিরা হলেন- প্রথম আলোর সহযোগী সম্পাদক ও কিশোর আলোর সম্পাদক আনিসুল হক, জ্যেষ্ঠ সহ-সম্পাদক মহিতুল আলম, প্রথম আলোর হেড অব ইভেন্ট অ্যান্ড অ্যাকটিভেশন কবির বকুল, নির্বাহী শাহপরান তুষার ও শুভাশীষ প্রামাণিক, অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ সরবরাহের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট জসীম উদ্দিন, মোশাররফ হোসেন, সুজন ও কামরুল হাওলাদার।

১২ নভেম্বর ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক কে এম ইমরুল কায়েশ কিশোর আলোর সম্পাদক আনিসুল হককে অব্যাহতি দিয়ে প্রথম আলোর সম্পাদক মতিউর রহমানসহ নয়জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেন।

৬ ডিসেম্বর মতিউর রহমানের বাতিল চেয়ে হাই কোর্টে আবেদন করলে তার ক্ষেত্রে মামলার কার্যক্রম ছয় মাসের জন্য স্থগিত করে হাই কোর্ট।

ঢাকা, ২৬ জানুয়ারি (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।