teletalk.com.bd
thecitybank.com
livecampus24@gmail.com ঢাকা | শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
teletalk.com.bd
thecitybank.com
রাবিতে বিজয় উল্লাস...

সবাইকে দলে-দলে জার্মানিতে আসার আহব্বান সমর্থকদের

Md Akramuzzaman | প্রকাশিত: ২৩ নভেম্বর ২০২২ ২০:৫২

প্রকাশিত: ২৩ নভেম্বর ২০২২ ২০:৫২

জার্মানি সমর্থকদের উল্লাস

রাবি লাইভ: গত ২০ নভেম্বর ৩২ দলকে নিয়ে ফুটবল ইতিহাসের সবচেয়ে ব্যয়বহুল ফুটবল বিশ্বকাপের পর্দা উঠেছে। ‘দ্য গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ' খ্যাত এবারের আসরকে ঘিরে উন্মাদনায় ভাসছে পুরো বিশ্ব। বাংলাদেশের সাধারণ জনগণ থেকে বিশ্ববিদ্যালয় সবখানেই সমর্থকদের মধ্যে চলছে তুমুল কথার লড়াই। চায়ের টেবিল থেকে ক্যাম্পাস, আবাসিক হল সবখানে একই প্রসঙ্গ। আলোচনা কেন্দ্রবিন্দুতে এবারের কাতার বিশ্বকাপ। নিজের প্রিয় দলকে এগিয়ে রাখতে কেও ঘাটতি রাখছে না। আর্জেন্টিনা, ব্রাজিলের পর এবার রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের জার্মান সমর্থকরাও করেছে আনন্দ মিছিল।

কারো হাতে বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা কিংবা জার্মানির পতাকা, গালে লাল-হলুদ আবিরের ছোঁয়া, হাতে লম্বা বাঁশি। সবার মুখেই নুয়্যার, মুলার, জার্মানি স্লোগান। তারা জড়ো হয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের টুকিটাকি চত্বরে। কাতার বিশ্বকাপকে স্বাগত জানিয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) আনদ শোভাযাত্রা করেছে জার্মানি সমর্থকরা।

বুধবার (২০ নভেম্বর) বেলা ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের টুকিটাকি চত্বর থেকে আনন্দ মিছিল বের করে সমর্থকরা। পরে মিছিলটি ক্যাম্পাসের প্রধান প্রধান সড়কগুলো প্রদক্ষিণ করে টুকিটাকিতে এসে শেষ হয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের এসোসিয়েট প্রফেসর ও সিন্ডিকেট সদস্য সাদিকুল ইসলাম সাগর বলেন, আমাদের জার্সিতে চারটি স্টার আছে। আমরা নিশ্চিতভাবে বলতে পারি এখানে আরেকটি স্টার যোগ হবে। ফুটবল প্রেমীরা জার্মানি সাপোর্ট না করে থাকতেই পারবে না। যারা ভুল পথে আছে তাদের সঠিক পথে আসার আহ্বান জানাই।

জার্মানির সাপোর্টার্স ইউনিটির প্রতিষ্ঠাকালীন সভাপতি দেলোয়ার হোসেন ডিলস বলেন, যারা জার্মানি সাপোর্ট করে তারা সবাই রয়েল। আমরা গর্জন দিতে পারি। বিভিন্ন দলের সাপোর্টাররা সেভেন আপ খাওয়ার ভয়ে আতঙ্কে রয়েছেন।

জার্মান সাপোর্টার্স ইউনিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. ইজাজ আল ওয়াসী বলেন, যারা জামার্নি সাপোর্টার আছেন তারা খেলা দেখে বুঝে শুনে জার্মানি সাপোর্ট করছেন। বংশ পরম্পরায় কেউ জার্মানি সাপোর্ট করে না। আমাদের দলের পারফরম্যান্স খুবই ধারাবাহিক। পারফরম্যান্সের মূল পরিচয় হলো আমাদের জার্সির চারটা স্টার। আমাদের দোয়া ও ভালোবাসায় কাতার বিশ্বকাপও জার্মানি নিবে।

জার্মানির সাপোর্টার আশিক ইসলাম বলেন, ফুটবলে আতঙ্কের নাম জার্মানি। ফুটবলে বিপক্ষ দলের আতঙ্কের নাম জার্মানি। দলটিকে বলা 'লাস্ট মিনিট ফাইটার'। তারকা খ্যাতি নয় প্রতিটি টুর্নামেন্টে টিম হিসেবে খেলে জার্মানি। দলটিতে মেসি, রোনালদো, নেইমার, এমবাপ্পের মতো তারকা নেই। তাতে কি জার্মানি টিম গেমে বিশ্বাসী। সেরাটা দিতে পারলে আমাদের পক্ষেই ফলাফল আসবে।

শোভাযাত্রা শেষে জার্মানি সাপোর্টার্স ইউনিট নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়। কমিটিতে দর্শন বিভাগের শিক্ষার্থী সাইয়াদার রহমানকে সভাপতি ও আইন বিভাগের শিক্ষার্থী তাজরিন আহমেদ খান মেধাকে সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে।

নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক তাজরিন মেধা বলেন, আমরা খুবই আত্মবিশ্বাসী আমাদের দলের ব্যাপারে। পঞ্চমবারের মতো এবার আমরা বিশ্বকাপ বিজয়ী হবো। যারা জার্মানি সাপোর্টাররা জ্ঞানী ও বুদ্ধিমান। তাদের তীক্ষ্ণ মেধার ফলেই এ দলকে তারা সাপোর্ট করেন।

ঢাকা, ২৩ নভেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//ওএফ//এমজেড


আপনার মূল্যবান মতামত দিন: