এবার রাবি শিক্ষার্থীর আমরণ অনশনের ঘোষণা


Published: 2021-09-21 12:39:09 BdST, Updated: 2021-10-24 05:25:56 BdST

রাবি লাইভ: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা শুরু হবে আগামী ৪ অক্টোবর। তবে করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়ায় খোলা হচ্ছে না বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলসমূহ। শিক্ষার্থীদের ৮০শতাংশ টিকা না গ্রহণ করা পর্যন্ত হল খোলার কোন পরিকল্পনা নেই এমনটা জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

এদিকে, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের এমন সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে ৩০ সেপ্টেম্বরের পূর্বেই সবগুলো হল খুলে দেয়ার দাবিতে আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের বুদ্ধিজীবী চত্ত্বরে আমরণ অনশনে বসার ঘোষণা দিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজী বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী সাকিব শাহরিয়ার রহমান।

অনশনে ঘোষণার বিষয়ে তিনি ক্যাম্পাসলাইভকে বলেন, 'করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আরও একবার আমাদের জানিয়ে দিয়েছে যে এ মাসেই হল খোলা সম্ভব হবে না কিন্তু বর্তমানে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগ ও ইন্সটিটিউটে অনেক শিক্ষার্থী সশরীরে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করছে। হল বন্ধ থাকায় এসব পরীক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন বিভিন্ন মেস / বাসায় চরম ভোগান্তির স্বীকার করে বড় অংকের সিটভাড়া পরিশোধ করে অস্থায়ীভাবে অবস্থান করতে বাধ্য হচ্ছে আর্থিকভাবে অসচ্ছল অনেক দরিদ্র পরিবারের সন্তানদের জন্যই এই সিটভাড়া পরিশোধ করে মেসে অবস্থান করা প্রায় অসম্ভব হয়ে দাঁড়িয়েছে। অনেক শিক্ষার্থীই মেসে কাঙ্ক্ষিত সিট না পেয়ে এখন দ্বারে-দ্বারে ঘুরছে যা দেশের অন্যতম শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপীঠ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী হিসেবে আমাদের জন্য খুবই অপমানজনক।'

তিনি আরো বলেন, 'আগামী মাসেই অনুষ্ঠিতব্য রাবি প্রথম বর্ষ ভর্তি পরীক্ষার অংশগ্রহণের উদ্দেশ্যে যারা রাজশাহীতে আসবে তাদের অধিকাংশই স্বাভাবিক সময়ে রাবির হলগুলোতেই অবস্থান করে কিন্তু এখনও রাবির হলগুলো খুলে না দেয়ায় এই বিশাল সংখ্যক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের স্থান সংকুলান করা দৃশ্যতঃ অসম্ভব বলেই প্রতীয়মান হচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন মেসগুলোতে এসব পরীক্ষার্থী গাদাগাদিভাবে অবস্থান করে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি কেবলই বাড়াবে। তাই সকল দিক বিবেচনায় রাবির নিয়মিত শিক্ষার্থী ও ভর্তিচ্ছু পরীক্ষার্থীদের সকল ভোগান্তি নিরসনে ৩০ সেপ্টেম্বরের পূর্বেই সবগুলো হল খুলে দেয়ার দাবিতে ক্যাম্পাসের বুদ্ধিজীবী চত্ত্বরে আমি আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর বৃহঃস্পতিবার থেকে আমরণ অনশনে বসতে যাচ্ছি।'

ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের আবাসন সংকট নিয়ে কথা হয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র উপদেষ্টা প্রফেসর তারেক নূরের সাথে। তিনি ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, 'করোনা মহামারীর কারণে এতো শিক্ষার্থীদের ক্যাম্পাসের অভ্যন্তরে থাকার ব্যবস্থা করা সম্ভব হবে না। আমরা শহরে এবং আশেপাশে মেস মালিকদের সাথে কথা বলেছি তারা যথেষ্ট সুযোগ সুবিধা দিবে বলে জানিয়েছেন। সেইসাথে অনেক মেসের সিট ফাঁকা আছে ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীরা থাকতে পারবে।'

ঢাকা, ২০ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//ওএফ//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।