হার্ভার্ড ভার্সিটিতে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেলেন ঢাবির উপমা


Published: 2020-07-27 17:21:51 BdST, Updated: 2020-08-05 22:11:17 BdST

ঢাবি লাইভ: আনিকা সুবাহ্ আহমেদ উপমা। পড়াশোনা করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। এবার তিনি যুক্তরাষ্ট্রের হার্ভার্ড ইউনিভার্সিটি থেকে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেয়েছেন।

বিশ্বখ্যাত উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির অনলাইন প্ল্যাটফর্মে পাবলিক স্পিকিং প্রফেশনাল ট্রেইনিং কোর্সে প্রায় ৯৭% গ্রেড অর্জন করেছেন উপমা। বিভিন্ন মূল্যায়ন পরীক্ষা, নিরীক্ষার পর হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয় থেকে গত ২৪ জুলাই আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পান বাংলাদেশি এ প্রশিক্ষক।

জানা গেছে, উপমা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগ থেকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেছেন। বর্তমানে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কানাডিয়ান ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশের ইংরেজি বিভাগে একজন লেকচারার হিসেবে নিযুক্ত আছেন। তিনি বাংলাদেশ ব্যাংকের ইংলিশ ল্যাংগুয়েজ ক্লাবের একজন রিসোর্স পারসন হিসেবেও যুক্ত ছিলেন।

এছাড়া তরুণদের নেতৃত্ব প্রদানকারী খ্যাতনামা সামাজিক সংগঠন ইভোল্যুশন-৩৬০ এর প্রতিষ্ঠাতা ও সভাপতি। গ্লোবাল গুডউইল অ্যাম্বাসেডর এবং ইউএন উইমেনের একমাত্র বাংলাদেশি চ্যাম্পিয়ন উপমা আহমেদ। বিগত পাঁচ বছর ধরে কর্পোরেট ইংলিশ ট্রেইনার হিসেবে পাবলিক স্পিকিং এবং কমিউনিকেশনস স্কিলস নিয়ে বিজিবি, বাংলাদেশ পুলিশ, টিচার্স ট্রেইনিং এবং বিভিন্ন মাল্টিন্যাশনাল কোম্পানিতে ট্রেইনিং দিয়েছেন ঢাবির এই প্রাক্তন শিক্ষার্থী।

উপমা বলেন, বর্তমান বিশ্বায়নের যুগে বাংলাদেশকে বিশ্বের দরবারে উপস্থাপন করার জন্য বিভিন্ন স্কিলের পাশাপাশি যেটা সবচেয়ে বেশি দরকার তা হলো প্রেজেন্টেশন স্কিল বা পাবলিক স্পিকিং দক্ষতা।

এজন্য এই পাবলিক স্পিকিং স্কিল ডেভেলপমেন্ট নিয়ে কাজ করতে চাই, যেন আমাদের দেশের যুবসমাজ নিজেদের আন্তর্জাতিক আঙিনায় উপস্থাপন করতে পারে। এই উদ্দেশ্যেই একটি অনলাইন কমিউনিকেশন স্কিলস ট্রেইনিংয়ের আয়োজন করা হয়েছে। এখন যার রেজিস্ট্রেশন চলছে। যেখানে অংশগ্রহণকারীরা পাচ্ছেন হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বেশকিছু পাবলিক স্পিকিং রিলেটেড সামগ্রী। তাই আগ্রাহীরা এতে অংশ নিতে পারেন। এই দক্ষতা আপনার সারা জীবনে কাজে লাগবে।


ঢাকা, ২৭ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।