করোনা সন্দেহে পলাতক যুবক, কোয়ারেন্টাইনে চিকিৎসকসহ ৭


Published: 2020-03-29 16:55:07 BdST, Updated: 2020-05-25 23:34:41 BdST

লাইভ প্রতিবেদকঃ সারা দেশেই করোনা থেকে নিজেদের রক্ষা করতে হোম কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন বহু মানুষ। এমন অবস্থায় কিশোরগঞ্জের শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে করোনা আক্রান্ত সন্দেহে চিকিৎসাধীন এক যুবক পালিয়ে গেছেন। রবিবার বেলা ১১টার দিকে ওই যুবক পালিয়ে যান।

জানা যায়, পলাতক ওই যুবকের নাম মো. কামাল হোসেন (৪০)। তিনি হোসেনপুরের বাসিন্দা। সর্দি-কাশি ও জ্বর নিয়ে হাসপাতালে চিকিৎসার এসেছিলেন ওই যুবক।

আরও জানা গেছে, সকালে হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য আসেন কামাল। টিকিট কেটে চিকিৎসকের কাছে গেলে চিকিৎসক তাকে এক্সরে ও আলট্রাসনোগ্রাম করার জন্য বলেন। পরে ডা. হাফিজুর রহমান মাসুদ আলট্রাসনোগ্রাম ও এক্সরে করে সন্দেহ করেন তিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। চিকিৎসক যখন রিপোর্ট লিখবেন সেই সুযোগে রোগী কামাল হাসপাতাল থেকে পালিয়ে যান।

ঘটনার পর তাৎক্ষণিকভাবে পলাতক ওই রোগীর সংস্পর্শে আসা ৩ জন চিকিৎসক ও ৪ স্টাফকে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে।

এ বিষয়ে সৈয়দ নজরুর ইসলাম মেডিকেল কলেজের প্যাথলজি বিভাগের কর্মরত ডা. হাফিজুর রহমান মাসুদ বলেন, রোগী কামাল হোসেনের মধ্যে করোনার প্রাথমিক লক্ষণ বিদ্যমান ছিল।

কলেজের উপ-পরিচালক ডা. হেলাল উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিরাত্তার জন্য রোগীর সংস্পর্শে যাওয়া তিন চিকিৎসক ও চার স্টাফকে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। রোগী কামালের অবস্থান জেনে ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য হোসেনপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তাকে নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে।

ঢাকা, ২৯ মার্চ (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।