teletalk.com.bd
thecitybank.com
livecampus24@gmail.com ঢাকা | শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
teletalk.com.bd
thecitybank.com

''গবেষণার পরিমাণের চেয়ে মান বৃদ্ধি করতে হবে''

Md Akramuzzaman | প্রকাশিত: ৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৮:০৭

প্রকাশিত: ৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৮:০৭

গবেষণা প্রকল্পের অগ্রগতি সেমিনার

জাককানইবি লাইভ: জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর বলেন, আমাদের গবেষকরা তাদের কার্যক্রম ঠিকঠাক মতোই করে চলেছে। তাদের গবেষণার বিষয়গুলো অত্যন্ত ভালো ও গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু এড়িয়াটা ছোট করা দরকার। ভূমিকা, পরিপ্রেক্ষিত এত দিয়ে এটাকে একেবার কঠিন করার কোন দরকার নেই। বরং মান যেন ভালো হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। পরিমাণের যেন খোঁজ না করি"।

তিনি আরও বলেন, গবেষকরা তাদের গবেষণা কাজ শেষ করার পর একটা করে সফ্ট কপিও জমা দিবে। যা আমরা আমাদের ডেভেলপকৃত ওয়েবসাইটে দিয়ে দিব, যাতে সারা পৃথিবীর মানুষ এটা দেখতে পারে। তাতে আমাদের নিজস্বতা যেমন থাকবে তেমনি চর্বিত চর্বণ করা, কারো কাছ থেকে হুবহু নিয়ে করা সেই ভয়টা কমে যাবে। কারণ যদি কেউ এ ধরনের কাজ করে ধরা পড়ে তাহলে সেটা কিন্তু শাস্তিযোগ্য অপরাধ হবে।

সোমবার (৫ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের কনফারেন্স কক্ষে ইন্সটিটিউট অব নজরুল স্টাডিজের ২০২০-২১ অর্থ বছরের গবেষণা প্রকল্পের অগ্রগতি সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেমিনারে ১৫ জন গবেষক তাদের গবেষণা অগ্রগতির প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন।

সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর। এসময় তরুণ গবেষকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, গবেষণার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে সততা। সবাইকেই যে গবেষক হতে হবে তা কিন্তু না। গবেষণার ক্ষেত্রে আমি যদি বিন্দুমাত্র অবদান রাখতে পারি, নতুন কিছু দিতে পারি সেটিই গবেষণা।

জাককানইবি ভিসি বলেন, শিক্ষা, গবেষণা ও উন্নয়ন এ তিনটি লক্ষ্য নিয়ে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। ছাত্রছাত্রীদের যে গবেষণা স্পৃহা এটা যদি আমরা প্রণোদনা দিতে পারি তাহলেই তারা বড় গবেষক হতে পারবে। আর শিক্ষকরা যেন গবেষকদের মেথডলজিটা শেখান আমি সেটার কথা বলবো। গবেষণাকে কী করে পদ্ধতিবিদ্যা অনুসারে করবো সেটা গুরুত্বপূর্ণ। গবেষণাকে এটি শৃঙ্খখলার মধ্যে নিয়ে আসতে হবে। বিশেষ করে এ ধরনের অগ্রগতি সেমিনার কেমন হওয়া উচিত তার একটি ডায়াগ্রাম আমরা ঠিক করে দেব। এছাড়া নিয়মিত সেমিনার, সিম্পোজিয়ামের আয়োজন করা হবে।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন রেজিস্ট্রার কৃষিবিদ ড. মো. হুমায়ুন কবীর, প্রক্টর ড. উজ্জ্বল কুমার প্রধান। এছাড়াও গবেষণা তত্ত্ববধায়কদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অধ্যাপক ড. মার্জিয়া আক্তার, সহযোগী অধ্যাপক ড. সৈয়দ মামুন রেজা, ড. এমদাদুর রাশেদ সুখন, ড. তপন কুমার সরকার, মাসুম হাওলাদার, ড. মো. কামালউদ্দিন, ড. মেহেদী উল্লাহসহ অন্যরা।

ঢাকা, ০৫ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//জেজে//এমজেড


আপনার মূল্যবান মতামত দিন: