করোনায় বরিশালে ২০ ও বগুড়ায় ১৫ জনের মৃত্যু


Published: 2021-07-21 15:57:42 BdST, Updated: 2021-07-30 07:55:37 BdST

লাইভ প্রতিবেদক: বরিশাল বিভাগে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে ২০ জন মারা গেছে। এদিকে বগুড়ায় গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৭ জন ও উপসর্গ নিয়ে ৮ জন মারা গেছেন। মঙ্গলবার (২০ জুলাই) সকাল ৮টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় জেলার করোনা বিশেষায়িত সরকারি বেসরকারি ৩টি হাসপাতালে তারা চিকিৎসাধীন ছিলেন। এদিকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেলে কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৫ জন ও উপসর্গ নিয়ে ১০ জন মারা গেছেন। এ সময় ওয়ার্ডে আইসোলেশনে আছেন ৩০২ জন রোগী।

বুধবার (২১ জুলাই) সকালে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেলে কলেজ হাসপাতালের কর্তৃপক্ষ। জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় বরিশাল জেলায় ২১০ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এদের মধ্যে ৯০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ৪২.৮৬ শতাংশ।

বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় ৭৩৩ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এদের মধ্যে ২৭৪ জনের করোনা শনাক্ত। শনাক্তের হার ৩৭.৩৮ শতাংশ। সর্বমোট আক্রান্ত হয়েছে ২৭৬৬৩ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘন্টা বিভাগের অন্য জেলাগুলো করোনায় মারা গেছেন ৫ জন। সর্বমোট মৃত্যু ৩৯৯ জন।

এদিকে বগুড়ায় গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৭ জন ও উপসর্গ নিয়ে ৮ জন মারা গেছেন। মঙ্গলবার (২০ জুলাই) সকাল ৮টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় জেলার করোনা বিশেষায়িত সরকারি-বেসরকারি ৩টি হাসপাতালে তারা চিকিৎসাধীন ছিলেন। বুধবার (২১ জুলাই) বেলা ১১টার দিকে বগুড়া সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মেডিকেল অফিসার ডা.সাজ্জাদ-উল-হক অনলাইন ব্রিফিংয়ে জেলার করোনা পরিস্থিতি সম্পর্কে এ সব তথ্য জানান।

মৃত ব্যক্তিরা হলেন, ঘণ্টায় আব্দুস সালাম (৪৩), শেরপুরের ফারহানা (৩৬), সদরের মতিয়ার (৬৫), কাহালুর খলিলুর রহমান (৭৩) ও মর্জিনা (৭৩), সদরের হেলাল (৪৮) এবং শাজাহানপুরের মমিন (৪০)। এদের মধ্যে সালাম, ফারহানা ও মতিয়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে, খলিলুর মোহাম্মদ আলী হাসপাতালে এবং বাকি ৩ জন টিএমএসএস হাসপাতালে মারা যান।

জানা গেছে, সর্বশেষ গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ৩৭৫ নমুনায় নতুন করে আরও ৯৫ জন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন। আক্রান্তের হার ২৫.৩৩ শতাংশ। এদের মধ্যে সদরের ৭২, শেরপুরে ১১, শিবগঞ্জে ৪, দুপচাঁচিয়ায় ৩, আদমদীঘি ২, সারিয়াকান্দি ২ এবং কাহালুতে একজন। এছাড়া একই সময়ে সুস্থ হয়েছেন ১২৮ জন।

ডা.সাজ্জাদ-উল-হক জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় মোট ৩৭৫টি নমুনা পরীক্ষার ফলাফল এসেছে। এর মধ্যে ঢাকায় পাঠানো ৫২ নমুনায় ৪ জনের, বগুড়া শজিমেকের পিসিআর ল্যাবে ২৮২টি নমুনায় ৭৭ জন করোনা পজিটিভ হয়েছেন। এ ছাড়া বেসরকারি টিএমএসএস মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে ৪১ নমুনায় ১৪ জন করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছেন।

তিনি আরও জানান, জেলায় এ পর্যন্ত মোট ১৭ হাজার ৫৮৭ জন করোনায় আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৪ হাজার ৯৬০ জন এবং ৫২৩ জন মারা গেছে। এছাড়া জেলায় ২ হাজার ১১৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন আছেন।

ঢাকা, ২১ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//বিএসসি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।