চট্টগ্রামে শতভাগ শিশুর দেহে ডেল্টার উপস্থিতি- গবেষণা


Published: 2021-07-19 13:20:42 BdST, Updated: 2021-07-30 06:57:54 BdST

লাইভ প্রতিবেদক: চট্টগ্রামে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শতভাগ শিশুর দেহে পাওয়া গেছে 'ভয়ঙ্কর' ভারতীয় ডেল্টা ভেরিয়েন্ট, যাদের মধ্যে অধিকাংশ শিশুর বয়স দশ বছরের নিচেবলে জানিয়েছে গবেষকরা।

রোববার (১৮ জুলাই) চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল এবং চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নেয়া ১২ শিশুর নমুনার জিনোম সিকোয়েন্স শেষে এ তথ্য জানান একদল গবেষক।

জানা গেছে, জুন থেকে জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত আক্রান্ত শিশুদের নমুনার ওপর এ গবেষণা চালানো হয়। এতে নবজাতক থেকে শুরু করে ১৬ বছর বয়সী শিশুদের অন্তর্ভুক্ত করা হয়। ডেল্টা ভেরিয়েন্টের অস্তিত্ব পাওয়া ১২ শিশুর মধ্যে ৬ জন ছেলে ও ৬ জন মেয়ে। এর মধ্যে সর্বনিম্ন বয়সী ৮ মাসের শিশুও রয়েছে। বেশিরভাগ শিশুর মধ্যেই ছিল সর্দি-কাশি ও জ্বরের লক্ষণ। তবে এক শিশু পুরোপুরি উপসর্গহীন ছিল বলে জানানো হয় গবেষণায়।

গবেষণা কাজে নেতৃত্ব দেন চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ডা. এইচএম হামিদুল্লাহ মেহেদী, ডা. আব্দুর রব মাসুম, চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের চিকিৎসক ডা. সঞ্জয় কান্তি বিশ্বাস ও ডা. নাহিদ সুলতানা।গবেষণা কাজের সার্বিক পরিকল্পনায় ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড বায়োটেকনোলজি বিভাগের শিক্ষক ড. আদনান মান্নান।

গবেষক ডা. সঞ্জয় কান্তি বিশ্বাস বলেন, 'চট্টগ্রামে গত জুন মাস থেকে করোনায় শিশু আক্রান্তের হার অনেক গুণ বেড়ে যায়। হঠাৎ করে শিশু আক্রান্তের হার বেড়ে যাওয়ার কারণ খুঁজে বের করতে গিয়ে গবেষণায় আমরা মূলত ডেল্টা ভেরিয়েন্টের কারণেই আক্রান্তের হার বেড়ে যাওয়ার প্রমাণ পাই। শতভাগ শিশুদের ডেল্টা ভেরিয়েন্টে আক্রান্তের বিষয়টি যথেষ্ট দুশ্চিন্তার।’

চট্টগ্রামের শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ডা. মুসলিম উদ্দীন সবুজ সমকালকে বলেন, 'চট্টগ্রামে জ্বরে আক্রান্ত শিশুর হার আশঙ্কাজনকভাবে বেড়েছে। জ্বরের সাথে করোনার নানা উপসর্গও মিলছে বেশকিছু শিশুর মাঝে। প্রতিদিন চেম্বারে চিকিৎসা নিতে আসা ৪০ জনের মধ্যে প্রায় ৩০ জনই পাচ্ছি জ্বরে আক্রান্ত। পরিবারের একাধিক শিশুও জ্বরে আক্রান্ত হচ্ছে। উপসর্গ থাকা আরও বেশকিছু শিশুর শরীরেও করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে। বিষয়টি খুবই উদ্বেগের। জ্বর দেখা দেওয়ার সাথে সাথে চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক খাওয়ানো যাবে না।'

ঢাকা, ১৯ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।