করোনায় আক্রান্ত হয়ে ১৯ বাংলাদেশির মৃত্যু!


Published: 2020-03-25 11:47:40 BdST, Updated: 2020-07-14 10:50:29 BdST

লাইভ ডেস্কঃ বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের তালিকায় নতুন নতুন দেশ যুক্ত হচ্ছে। বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও। গেল কয়েক দিনে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবরের তথ্য অনুযায়ী এ ভাইরাসে বাংলাদেশের অন্তত ১৯ জন মারা গেছেন। এর মধ্যে নিজ দেশে ৪জন বাকিরা বিশ্বের বিভিন্ন দেশে থাকা অবস্থায় মারা যান।

তবে কিছু বিধি-নিষেধের কারণে বিদেশে এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও কোন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে কিনা তা নিশ্চিত ভাবে বলা যাচ্ছে না। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সূত্রে জানা গেছে, ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে একমাত্র ইতালি ছাড়া অন্যদের স্বাস্থ্যব্যবস্থার তথ্য জানানোর বিষয়ে বিধিনিষেধ আছে। তাই চাইলেই ইউরোপের দেশ থেকে আক্রান্ত বাংলাদেশিদের বিষয়ে নির্দিষ্টভাবে তথ্য জানা সম্ভব হচ্ছে না। তবে এর মাঝেও মৃতের স্বজনদের মাধ্যমে কিছু মৃত্যু খবর পাওয়া যাচ্ছে।

এদিকে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) জানিয়েছে, দেশে এখন পর্যন্ত ৩৯ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এরমধ্যে ৪ জন মারা গেছেন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন ৫ জন এবং বাকিরা চিকিৎসাধীন। এ ভাইরাসে গত ১৮ মার্চ প্রথম মৃত্যু খবর দেয় আইইডিসিআর। এরপর ২১ মার্চ একজন ২৩ মার্চ একজন এবং সবশেষ মঙ্গলবার ২৪ মার্চ একজনের মৃত্যু খবর নিশ্চিত করে সরকারের এ স্বাস্থ্য বিভাগটি।

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ২৪ মার্চ দুজন নারী ও দুজন পুরুষ মারা গেছেন। এ নিয়ে নিউইয়র্কে করোনাভাইরাসে মোট ৮ বাংলাদেশির মৃত্যু হলো। এর আগে যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৩ মার্চ ২ জন, তার আগের সপ্তাহে ২ জন বাংলাদেশি মারা গেছেন।

অন্যদিকে যুক্তরাজ্যে মারা গেছেন ৫ বাংলাদেশি। ২৪ মার্চ লন্ডনে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সবশেষ ২ জন মারা গেছেন। যুক্তরাজ্যে সর্বপ্রথম ৬০ বছর বয়সী এক বাংলাদেশি মারা গিয়েছিলেন। তার পর ৬৬ বছর বয়সী দ্বিতীয় বাংলাদেশি মৃত্যুবরণ করেছেন লন্ডনের বাঙালি অধ্যুষিত টাওয়ার হ্যামলেটসে। তৃতীয় বাংলাদেশি মৃত্যুবরণ করেছেন যুক্তরাজ্যে সফররত এক বাংলাদেশি।

এছাড়াও করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ২০ মার্চ ইতালির মিলানে একজন এবং ২৩ মার্চ গাম্বিয়ায় এক বাংলাদেশি ইমাম মারা গেছে।

বিশ্বের ১৯৭ টি দেশ ও অঞ্চলে এ ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। দ্রুত ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে (কোভিড-১৯) মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৮ হাজার ৮৯২ জনে। এ পর্যন্ত ৪ লাখ ২২ হাজার ৬১৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো। আক্রান্তদের মধ্যে চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ১ লাখ ৮ হাজার ৮৭৯ জন।

ঢাকা, ২৫ মার্চ (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//টিআর

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।