নুর বললেন একি দেশ: ‌‌"একজন গ্রেফতার করে, একজন মারে আরেকজন ছাড়ে''


Published: 2020-09-22 09:32:18 BdST, Updated: 2020-10-20 05:31:06 BdST

ঢাবি লাইভ: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) বিদায়ী ভিপি নুরুল হক নুর বলেছেন এদেশে আইনের শাসন নেই। গণতন্ত্র নেই। তাই এদেশে কেউ ন্যায় বিচার পাবেনা। ধরে নিতে হবে এর বিকল্প কেবল আন্দোলন। ডিবি কার্যালয় থেকে বের হয়ে গণমাধ্যমকে তিনি এসব কথা বলেন। আজকে যে মাইর খাইলাম সে বিচার জনগণের কাছে দিলাম’।

২২ সেপ্টেম্বর রাত ১২টা ৩৫ মিনিটে ডিবি কার্যালয় থেকে মুক্তি পেয়ে গণমাধ্যমে ব্রিফিংকালে এ বক্তব্য দেন নুর। তিনি বলেন, ‘আপনারা দেখেছেন মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে আমাদের তাৎক্ষণিকভাবে একটি বিক্ষোভ মিছিল হয়।

শান্তিপূর্ণভাবে মিছিল শেষ করে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মৎস্য ভবনের দিকে আসছিলাম তখন পুলিশ অতর্কিতভাবে লাঠি, কাঠ, রড, হকিস্টিক দিয়ে হামলা করে। একেবারে সিনেমা স্টাইলে জাম্প করে আমার ঘাড়ে লাথি মারে। অনেকে গুরুতর আহত হয়েছেন’।

নুর আরও বলেন, ‘আমাদেরকে মুচলেকা দিয়ে ছেড়ে দিয়েছে। কিন্তু আমরা বুঝলাম না আমাদের কেন গ্রেফতার করা হয়েছে, কেনইবা ছাড়া হলো, কেনইবা আমাদের ওপর এভাবে হামলা করা হয়েছে।

আমরা অনেক সময়ই হামলা-মামলার শিকার হই। কিন্তু দেশে যা ঘটে তার সঙ্গে প্রশাসন-রাষ্ট্রযন্ত্রের অঙ্গের সঙ্গে কাজেকর্মে কারও মিল নেই। এজন্য একজন গ্রেফতার করে, একজন মারে আরেকজন ছাড়ে’।

এসময় ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম-আহ্বায়ক সোহরাব হোসেন, ঢাবি শাখার সভাপতি বিন ইয়ামিন মোল্লা, আকরাম হোসেনসহ অনেক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন। এর আগে সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৮টার দিকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

ধর্ষণের মামলার পাশাপাশি পুলিশের ওপর হামলার অভিযোগেও তাকে আটক করা হয়। এরপর তাকে নেয়া হয় ডিবি কার্যালয়ে। এর কিছুক্ষণ পরই তাকে ছেড়ে দেয়া হয়।

প্রসঙ্গত, ২০ সেপ্টেম্বর রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) এক শিক্ষার্থী লালবাগ থানায় মামলাটি করেন। মামলায় মোট ছয়জনকে আসামি করা হয়েছে। তাদের মধ্যে ধর্ষণে সহযোগী হিসেবে নুরুল হক নুরের নাম উল্লেখ করা হয়েছে।

ঢাকা, ২২ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম) //এআইটি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।