ঢাবির এক প্রফেসরের বিরুদ্ধে অন্য সহকর্মীর জিডি


Published: 2017-11-14 22:29:37 BdST, Updated: 2017-11-19 05:33:18 BdST

 

ঢাবি লাইভ: বিষয়টি এখন আর ভেতরের নয়। গোপনীয় নয়। জানাজানি হয়েগেছে সবখানে। তবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মত প্রতিষ্ঠানের একজন শিক্ষক অন্য শিক্ষকের ব্যাপারে জিডি করতে পারেন এমন অনেকেই মেনে নিতে পারছে না। বলছেন এটা লজ্জাজনক। দু:খজনক।

জানাগেছে ‘অত্যন্ত অপমানজনক ও ভীতি উদ্রেককারী ভাষায়’ মোবাইলে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ এনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) প্রফেসর এ কে এম জামাল উদ্দীনের বিরুদ্ধে জিডি করেছেন আরেক শিক্ষক।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, ফারসি ভাষা ও সাহিত্য বিভাগের প্রভাষক মেহেদী হাসান ওই জিডি করেছেন।

গত ১০ নভেম্বর মেহেদি হাসান এ জিডি করেন। যার নম্বর ৬৪২। বিষয়টি গোপনীয় ছিল। তদন্তও চলছিল গোপনে। কিন্ত শেষমেষ গোপন থাকেনি। জানাজানি হয়ে গেছে।

জিডিতে মেহেদী হাসান উল্লেখ করেন, ‘গত ২৬ অক্টোবর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় নীলদল কর্তৃক আয়োজিত সাধারণ সভা চলাকালীন সময়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. এ কে এম গোলাম রব্বানী সমাজবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. আ ক ম জামাল উদ্দিন কর্তৃক আক্রমণের স্বীকার হন।

কিন্তু আক্রমণকারী শিক্ষক ড. আ ক ম জামাল উদ্দিন মিডিয়ার কাছে অসত্য তথ্য প্রদান করায় আমি যেহেতু ওই ঘটনার একজন প্রত্যক্ষদর্শী ছিলাম, তাই ড. আ ক ম জামাল উদ্দিনের মিথ্যাচারের কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হওয়ায় আমি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সঠিক তথ্য প্রকাশ করে যথাযথভাবে এর প্রতিবাদ করতে থাকি।

এর প্রতিক্রিয়ায় গত ৬ নভেম্বর রাত ১০টা ২০ মিনিট থেকে ১০টা ২৫ মিনিটের মধ্যে সমাজবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. আ ক ম জামাল উদ্দিন আমাকে ফোন করে অত্যন্ত অপমানজনক ও ভীতি উদ্রেককারী ভাষায় হুমকি প্রদান করেন।’

এ বিষয়ে মন্তব্যের জন্য অভিযুক্ত অধ্যাপক জামাল উদ্দিনকে ফোন করা হলে তিনি কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।


ঢাকা, ১৪ নভেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//বিএসসি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।