পিইসি পরীক্ষায় জিপিএ-৫, বাড়ির পেছনে ছোট্ট নিথর দেহ


Published: 2018-12-27 12:41:47 BdST, Updated: 2019-03-21 10:21:28 BdST

গাজীপুর লঅইভ : সদ্য বের হওয়া পিইসি পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পেয়েছিল ইফতিয়াক হোসেন নিফাত। তবে নিফাতের পরিবারে এখন আনন্দ নেই। ছোট্ট এই শিশুটিকে আপহরণের পর মুক্তিপণের টাকা না পেয়ে হত্যা করা হয়েছে। বাড়ির পেছনেই তার লাশ ফেলে রেখে গেঝে সন্ত্রাসীরা। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের বাহাদুরপুর তুলসি ভিটা এলাকায় বৃহস্পতিবার সকালে ওই ছাত্রের লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত ইফতিয়াক হোসেন নিফাত (১১) স্থানীয় ভাওয়াল মির্জাপুর পাবলিক স্কুল থেকে এ বছর পিইসি পরীক্ষায় অংশ নিয়ে জিপিএ-৫ পেয়েছিল। তার বাবার নাম হযরত আলী। দুই ভাইয়ের মধ্যে নিফাত ছোট।

নিহতের মামাতো ভাই আশাদুল হক জানান, বুধবার দুপুর ১২টার দিকে নিফাত বাড়ির পাশে বাহাদুরপুরগামী রাস্তায় খেলাধুলা করছিল। ঘণ্টাখানিক পর সে বাসায় না ফেরায় বাড়ির স্বজনরা তাকে খোঁজাখুঁজি করতে থাকে। পরবর্তীতে অজ্ঞাত পরিচয়ের এক ব্যক্তি নিফাতের বাবার কাছে মোবাইল ফোনে তার ছেলেকে অপহরণের কথা জানায় এবং মুক্তিপণ বাবদ ৩০ লাখ টাকা দাবি করে। টাকা না দিলে এবং পুলিশে খবর দিলে ছেলের ক্ষতি হবে বলে হুমকি দেয়। এ ঘটনায় ওই দিনই গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের সদর থানায় অভিযোগ প্রদান করা হয়।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের সদর থানা ওসি সমীর চন্দ্র সূত্রধর জানান, অপহরণের অভিযোগ পেয়ে পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করতে সারারাত গাজীপুরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়েছে। তিনি আরও জানান, শিশুটিকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে পারিবারিক শত্রুতার জেরে বাড়ির কাছেই কোথাও শিশুটিকে হত্যার পর দুর্বৃত্তরা বাড়ির পেছনে তার মরদেহ ফেলে রেখে গেছে। পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদর গ্রেফতারে অভিযান পরিচালনা করছে বলে উল্লেখ করেন তিনি।

ঢাকা, ২৭ ডিসেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।