কোভিড-১৯ চিকিৎসার প্রথম পরীক্ষাই অকার্যকর!


Published: 2020-04-24 12:21:46 BdST, Updated: 2020-05-31 17:17:30 BdST

লাইভ ডেস্ক: আশা আর ভরসা যেন ভেঙ্গে গেল। অনেক প্রত্যাশা নিয়ে কাজ করছিলেন তারা। কিন্তু মরণঘাতি ভাইরাসের সফলতা আসেনি। যেন ব্যর্থই হয়ে গেছে। এই ভাইরাস নির্মূলের অপেক্ষা যেন কিছুতেই ফুরাচ্ছে না। বিশেষজ্ঞরা নিরলসভাবে এই ভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিস্কারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। আশাহত হওয়ার কিছু নেই। তাদের দাবী শিগগিরই একটা ভ্যাকসিন তারা বিশ্ব দরবারে দিতে পারবেন। বিজ্ঞানীদের অনেক আশা ছিল, অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ রেমডিসিভির কোভিড-১৯ সারাতে সক্ষম হবে। তবে সেই আশায় গুঁড়েবালি। ওষুধটি এর প্রথম পরীক্ষাতেই ব্যর্থ প্রমাণিত হয়েছে। সম্প্রতি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ‘দুর্ঘটনাবশত’ এ তথ্য প্রকাশ করেছে বলে জানা গেছে।

ওই সংস্থাটির প্রকাশিত এক নোটে বলা হয়েছে, চীনে করোনার চিকিৎসায় রেমডিসিভির ব্যবহার করা হয়েছিল। কিন্তু সেটি রোগীর শারীরিক অবস্থার উন্নতি ঘটাতে পারেনি, রক্ত থেকে ভাইরাস নির্মূলেও ব্যর্থ হয়েছে। এতে বলা হয়, গবেষকরা মোট ২৩৭ জন করোনা আক্রান্ত রোগীর ওপর পরীক্ষা চালান।

ওই আক্রান্তদের মধ্যে ১৫৮ জনকে রেমডিসিভির ও ৭৯ জনকে সাধারণ ওষুধ দেয়া হয়েছিল। কিন্তু রেজাল্ট আশানুরোপ আসেনি। একমাস পরে দেখা যায়, রেমডিসিভির গ্রহণকারীদের মধ্যে ১৩ দশমিক ৯ শতাংশই মারা গেছেন, বিপরীতে সাধারণ ওষুধ নেয়া রোগীদের মধ্যে মৃত্যুহার ১২ দশমিক ৮ শতাংশ। পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার কারণে দ্রুতই এ পরীক্ষা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে বলে তথ্য মিলেছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা তাদের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল ডাটাবেজে এসব তথ্য প্রকাশ করেছিল। তবে কিছুক্ষণ পরেই তা সরিয়ে নেয়া হয়। বিষয়টি নিয়ে ভাবিয়ে তুলেছে বিশ্ববাসীকে। তবে গবেষকরা হতাশ হননি। আশা ছাড়েননি। তারা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

ঢাকা, ২৪ এপ্রিল (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এআইটি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।