বিশ্বভ্রমণে সেঞ্চুরি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর!


Published: 2018-06-03 01:39:13 BdST, Updated: 2018-06-18 15:26:19 BdST

লাইভ প্রতিবেদক : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের ছাত্রী নাজমুন নাহার। স্বপ্ন তার বিশ্বভ্রমণ। বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা ওড়ানো দেশে দেশে। সেই স্বপ্নের শুরুটা হয়েছিল ২০০০ সালে। তিনি তখন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় বর্ষে পড়াশোনা করেন। ভারত ভ্রমণের মাধ্যমে তার স্বপ্নযাত্রা শুরু হয়।

নাজমুন নাহার অনার্স ও মাস্টার্স শেষ করে তিনি রাজশাহী থেকে ঢাকায় চলে আসেন। সাংবাদিকতা করেন কিছুদিন। এরই মাঝে ২০০৬ সালে স্কলারশিপ নিয়ে যান সুইডেন। লক্ষ্মীপুরের মেয়ে নাজমুন সুইডেনের লুন্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে এশিয়ান স্টাডিজ বিষয়ে মাস্টার্স করেন। পড়াশোনার ফাঁকে খণ্ডকালীন কাজও করতেন তখন। কয়েক মাসের জমানো টাকায় জাহাজে ভ্রমণ করেন ফিনল্যান্ড।

নাজমুন নাহার সুইডওয়াচসহ আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংস্থায় খণ্ডকালীন চাকরি করেছেন। ওই ছাত্রী ২০১৬ ও ২০১৭ সালে ঘুরেছেন ৩৫টি দেশ। এ তালিকায় আছে ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, বলিভিয়া, পেরু, চিলি, প্যারাগুয়েসহ দক্ষিণ আমেরিকার ১০টি দেশ। এই দুই সাল মিলিয়ে এটাকে তার ‘ভ্রমণবর্ষ’ বলা যায়! এভাবে একে একে উগান্ডা, রুয়ান্ডা, তানজানিয়া, জাম্বিয়াসহ ১০০টি দেশ ভ্রমণ করেছেন নাজমুন নাহার। এর মধ্য দিয়ে বাংলাদেশি নারী হিসেবে বিরল কৃতিত্ব অর্জন করলেন তিনি। নাজমুন নাহার ‘ইনসপিরেশন গ্লোবাল ফাউন্ডেশন’ নামের একটি উদ্যোগ শুরু করেছেন। এর মাধ্যমে তিনি বিভিন্ন স্কুল ও অনাথ আশ্রমে যাবেন। বর্ণনা করবেন নিজের ভ্রমণ-অভিজ্ঞতা।

জানা গেছে, গত শুক্রবার (০১ জুন) আফ্রিকার দেশ জিম্বাবুয়ের মাটিতে পা রেখে শততম দেশ ভ্রমণের মাইলফলক স্পর্শ করেন নাজমুন নাহার। তার ভ্রমণতালিকায় পূর্ব আফ্রিকার জাম্বিয়া ছিল ৯৯তম দেশ। দেশটির লিভিংস্টোন শহর থেকে হেঁটে তিনি জিম্বাবুয়ে পৌঁছান। বিখ্যাত ভিক্টোরিয়া জলপ্রপাতের জিম্বাবুয়ে অংশে কয়েক ঘণ্টা ঘুরে আবার জাম্বিয়ায় ফিরে আসেন তিনি। ঈদের পরেই দেশে ফিরবেন নাজমুন।

ঢাকা, ০৩ জুন (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।