জন্মদিনের নামে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী ধর্ষণ, সেই সাফাতের জামিন


Published: 2018-12-01 00:32:05 BdST, Updated: 2018-12-11 02:31:32 BdST

লাইভ প্রতিবেদক : জন্মদিনের অনুষ্ঠানের নামে বনানীর ‘দ্য রেইনট্রি’ হোটেলে ডেকে নিয়ে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই ছাত্রীকে ধর্ষণের সেই চাঞ্চল্যকর ঘটনার কথা মনে আছে নিশ্চই। ওই মামলার প্রধান আসামি আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদকে জামিন দেয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার শুনানি শেষে ঢাকার সাত নম্বর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক জামিনের এ আদেশ দেন। শুক্রবার সাফাত আহমেদের জামিনের বিষয়টি তার আইনজীবী ও ঢাকা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি কাজী মো. নজিবউল্ল্যা হিরু নিশ্চিত করেছেন।

ওই আইনজীবী জানান, ধর্ষণের মামলায় সাফাত আহমেদ এক বছর সাত মাসের অধিক সময় ধরে কারাগারে রয়েছে। শারীরিকভাবে অসুস্থ হয়ে হাসপাতালেও দীর্ঘদিন চিকিৎসা নিয়েছে। মামলায় বাদীসহ কয়েক জনের সাক্ষীও হয়েছে। আসামি জামিন পেলে বাদী কিংবা সাক্ষীদের ওপর কোনো প্রকার প্রভাব ফেলবে না। বিষয়গুলো জানিয়ে জামিনের আবেদন করা হয়।

উল্লেখ্য, ওই মামলায় সাফাত আহমেদের বন্ধু নাঈম আশরাফ ওরফে এইচএম হালিম ও সাদমান সাকিফ কারাগারে রয়েছেন। এছাড়া অপর দুই আসামি সাফাতের গাড়ি চালক বিল্লাল হোসেন ও দেহরক্ষী রহমত আলীও জামিনে আছেন।

এর আগে গত বছরের ১৩ জুলাই আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদসহ পাঁচ আসামির বিরুদ্ধে এ মামলায় চার্জ গঠন করেন আদালত। তদন্ত শেষে ওই বছরের ৮ জুন ঢাকা মহানগর পুলিশের উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেস্টিগেশন ডিভিশনের পুলিশ পরিদর্শক ইসমত আরা এমি সাফাত আহমেদসহ পাঁচ আসামির বিরুদ্ধে আদালতে এ চার্জশিট (অভিযোগপত্র) দাখিল করেন। চার্জশিটে ৪৭ জনকে সাক্ষী করা হয়েছে।

গত বছরের ৬ মে সন্ধ্যায় রাজধানীর বনানী থানায় ধর্ষণের অভিযোগে ওই পাঁচজনকে আসামি ভুক্তভোগী এক ছাত্রী বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন। মামলায় অভিযোগ করা হয় জন্মদিনের অনুষ্ঠানে ডেকে নিয়ে দুই ছাত্রীকের বন্ধুরা মিলে ধর্ষণ করেছে সাফায়াত। সেই ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করে পরে তাদের ব্ল্যাকমেইল করারও চেষ্টা করা হয়েছে।

ঢাকা, ০১ ডিসেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।