চতুর্থ দিনে অবরুদ্ধ পরিচালক, বিপাকে চিকিৎসা সেবা


Published: 2018-07-07 14:30:56 BdST, Updated: 2018-12-10 10:52:42 BdST

গণবি লাইভ: সাভারের গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শিক্ষানবিশ চিকিৎসকরা চতুর্থ দিনের মতো কর্মবিরতি চারিয়ে যাচ্ছে । ৬ দফা দাবিতে গত বুধবার থেকে তারা কর্মবিরতি পালন করছেন ক্যাম্পাসে।

শনিবার কর্মবিরতিতে থাকা শিক্ষানবিস চিকিৎসকরা গণ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি (ভারপ্রাপ্ত) ডাঃ লায়লা পারভিন বানু, রেজিস্ট্রার মোঃ দেলোয়ার হোসেন, গণস্বাস্থ্য সমাজ ভিত্তিক মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডাঃ ফরিদা আদিব খানম বরাবর পুনরায় স্মারকলিপি দেন।

পরে কর্মবিরতিতে থাকা চিকিৎসকরা গণস্বাস্থ্য সমাজ ভিত্তিক মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডাঃ মোঃ মিজানুর রহমানের কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নেয় আন্দোলনরত চিকিৎসকরা ।

আন্দোলনরত চিকিৎসকরা

 

এসময় পরিচালক বের হয়ে এসে শিক্ষানবিস চিকিৎসকদের তাঁর কক্ষের সামনে বসতে বাধা দেন। তাদের উঠিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করেন। এসময় শিক্ষার্থীরা বসে পড়ে পরিচালকের রুম অবরোধ করে রাখেন ।

শিক্ষানবিস চিকিৎসকরা জানান, হাসপাতালের পরিচালক আমাদের অভিভাবক। আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য, রেজিস্ট্রার, মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ বরাবর স্মারকলিপি দিয়েছি। কোন পক্ষই আমাদের বিষয়টি নিয়ে কোন ধরনের সিদ্ধান্ত দিচ্ছেন না।

এসব বিষয়ে মেডিকেল কলেজের পরিচালক ডাঃ মিজানুর রহমান ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, আমি ওদের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কেউ নই। ওদের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিবেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ।

আমার কাজেরও কিছু সীমাবদ্ধতা রয়েছে। কারো বেতন বাড়ানো আমার ক্ষমতার মধ্যে নেই।

এদিকে কর্মবিরতিতে থাকা চিকিৎসকদের দাবি নিয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ কোন ধরনের সিদ্ধান্তে না আসতে পারায় হাসপাতালের রোগীরা পড়েছেন বিপাকে। হাসপাতাল ঘুরে দেখা যায়, প্যারামেডিকদের সহায়তায় চলছে চিকিৎসা কার্যক্রম।

একজন প্যারামেডিকেল কর্মী কতটুকু নির্ভুল চিকিৎসা দিতে পারবেন, এমন চিন্তাও জেগে উঠেছে চিকিৎসা সেবা নিতে আসা অনেক রোগীর স্বজনের মনে।

শিক্ষানবিশ চিকিৎসকদের দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে, মাসিক ভাতা বৃদ্ধি, প্রতি মাসের ৭ তারিখের মধ্যে বেতন পরিশোধ করা, ভাতা হতে থাকা-খাওয়া বাবদ খরচ বাধ্যতামূলকভাবে কর্তন না করে শুধু যারা হোস্টেলে থাকবে তারা যেন আলাদাভাবে পরিশোধ করতে পারে, সে ব্যবস্থা করা।

কর্মবিরতিতে থাকা শিক্ষানবিস চিকিৎসকরা জানিয়েছেন দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত সব ধরনের চিকিৎসা সেবা দেয়া থেকে তারা বিরত থাকবেন। তবে ইমার্জেন্সিতে কোন রোগী আসলে তাদের সকল প্রকার সেবা নিশ্চিত করছেন তাঁরা।


ঢাকা, ০৭ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//বিএসসি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।