বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণের আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি


Published: 2017-11-01 12:40:11 BdST, Updated: 2017-11-23 11:18:05 BdST

লাইভ প্রতিবেদক : জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণকে বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ প্রামাণ্য ঐতিহ্য হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হয়েছে। জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতিবিষয়ক সংস্থা ইউনেস্কো ওই স্বীকৃতি দিয়েছে। প্যারিসে সোমবার ইউনেস্কোর সদরদপ্তরে সংস্থাটির মহাপরিচালক ইরিনা বোকোভো এই ঘোষণা দেন।

এর আগে ইউনেস্কোর মেমোরি অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারে ওই ভাষণকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়। এর মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে স্বীকৃতি পেল বাংলাদেশের স্বাধীনতার এই সনদ।

এ বিষয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী বলেন, আমাদের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও মহান মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে বিশ্ব এখন আরো বড় পরিসরে জানবে।

ইন্টারন্যাশনাল অ্যাডভাইজরি কমিটি (আইএসি) কোনো ডকুমেন্টকে ইউনেস্কোর মেমোরি অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারে অন্তর্ভুক্তির ব্যাপারে পরামর্শ দিয়ে থাকে। এর আগে গেলো ২৪ থেকে ২৭ অক্টোবর কমিটির বৈঠকে ৭ই মার্চের ভাষণকে অন্তর্ভুক্তির সিদ্ধান্ত হয়।

বৈশ্বিকভাবে গুরুত্ব আছে এমন সব ডকুমেন্টকেই মেমোরি অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারে অন্তর্ভুক্তি করা হয়।

উল্লেখ্য, ১৯৭১ সালে ৭ই মার্চ ঢাকার রমনায় অবস্থিত রেসকোর্স ময়দানে (বর্তমান সোহরাওয়ার্দী উদ্যান) অনুষ্ঠিত জনসভায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এই ঐতিহাসিক ভাষণ দেন। ১৮ মিনিট স্থায়ী এই ভাষণে তিনি তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের (বর্তমানে বাংলাদেশ) বাঙালিদেরকে স্বাধীনতা সংগ্রামের জন্য প্রস্তুত হওয়ার আহ্বান জানান। ১২টি ভাষায় ভাষণটি অনুবাদ করা হয়।


ঢাকা, ০১ নভেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।