25525

মিয়ানমারে বিদ্রোহীদের সঙ্গে সংঘর্ষে ৩০ সেনা নিহত

মিয়ানমারে বিদ্রোহীদের সঙ্গে সংঘর্ষে ৩০ সেনা নিহত

2019-08-22 01:25:37

ইন্টারন্যাশনাল লাইভ: মিয়ানমারে বিদ্রোহীদের সঙ্গে ভয়াবহ সংঘর্ষে দেশটির ৩০ সেনা সদস্য নিহত হয়েছে। উত্তরাঞ্চলের শান রাজ্যে বিচ্ছিন্নতাবাদী গোষ্ঠী নর্দার্ন অ্যালায়েন্সের বিদ্রোহীদের সঙ্গে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, চীন সীমান্তের নিকটবর্তী শান রাজ্যের বিভিন্ন স্থানে বিদ্রোহীদের সঙ্গে সংঘর্ষে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সদস্যদের প্রাণহানি ঘটেছে। এছাড়া সংঘর্ষে গৃহহীন হয়ে পড়েছে আরো ২ হাজারের বেশি মানুষ।

ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলের সহিংসতা বিধ্বস্ত শান রাজ্যের নতুন এই সংঘর্ষ দেশটির নেত্রী ও স্টেট কাউন্সিলর অং সান সু চির জন্য বড় ধরনের ধাক্কা হিসেবে দেখছেন অনেকেই।

নর্দান অ্যালায়েন্স জানিয়েছে, শান রাজ্যের লাশিও থেকে মুসে মহাসড়কের কুটকি মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে ৯টি সংঘর্ষ হয়েছে। এসব সংঘর্ষের কোনোটি ৩ থেকে ৪ ঘণ্টা ধরে চলেছে। তবে মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে এই সংঘর্ষের অবসান ঘটে।

বিচ্ছিন্নতাবাদী বিদ্রোহী গোষ্ঠীর পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে, সংঘর্ষের ঘটনায় মিয়ানমারের অন্তত ৩০ সেনাসদস্য নিহত ও ১৬ সদস্য আহত হয়েছে। তবে সংঘের্ষ বিচ্ছিন্নতাবাদী এই গোষ্ঠীর কয়েকজন সদস্য আহত হলেও কারও প্রাণহানি ঘটেনি।

দেশটির সেনাবাহিনীর মুখপাত্র ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জ্য মিন তুন গণমাধ্যমকর্মীদের জানিয়েছেন, সংঘর্ষ হলেও ৩০ সৈন্যের প্রাণহানি অসম্ভব। নং চো ও কিয়াকমি শহরে দুটি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। কিয়াকমির সংঘর্ষে বিদ্রোহী গোষ্ঠী তাং ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মির (টিএনএলএ) একটি অস্থায়ী ঘাঁটি ধ্বংস হয়েছে।

ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জ্য মিন তুন জানিয়েছেন, কুটকাই এলাকায় আরো একটি সংঘর্ষ হয়েছে। আমরা ঘটনাস্থল থেকে একটি বন্দুক, সামরিক সরঞ্জাম এবং একজনের মরদেহ উদ্ধার করেছি। আমরা খবর পেয়েছি যে, লাশিও এবং কুটকাই এলাকায় বিদ্রোহীদের অনেক সদস্য নিহত হয়েছে। আমরা এখন পর্যন্ত ১০ বিদ্রোহীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।


ঢাকা, ২১ আগস্ট (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম.কম)//এমআই

প্রধান সম্পাদক: আজহার মাহমুদ
যোগাযোগ: হাসেম ম্যানসন, লেভেল-১; ৪৮, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, তেজগাঁ, ঢাকা-১২১৫
মোবাইল: ০১৬৮২-৫৬১০২৮; ০১৬১১-০২৯৯৩৩
ইমেইল:[email protected]