কুমেকে সংঘর্ষ, উত্তেজনা : ৮ ছাত্রলীগ নেতাকর্মী বহিষ্কার


Published: 2017-11-04 00:41:22 BdST, Updated: 2018-06-24 16:56:15 BdST

কুমিল্লা লাইভ : কুমিল্লা মেডিকেল কলেজে (কুমেক) ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। এঘটনায় ৮ ছাত্রকে সাময়িকভাবে কলেজ ও হোস্টেল থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। এছাড়া ৯ ছাত্রকে সতর্ক করা হয়েছে। তারা সবাই ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। এদিকে কুমেকের ৫ ইন্টার্ন চিকিৎসকের বিষয়েও ব্যবস্থা নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। কুমেকের এক জরুরী সভায় এ সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়েছে। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে কুমেক ক্যাম্পাস ও হাসপাতালে ব্যাপক উত্তেজনা দেখা দেয়। এ সময় হাসপাতালে দায়িত্বরত ইন্টার্ন চিকিৎসকরা অঘোষিতভাবে কর্মস্থল থেকে বেড়িয়ে আসে। রাতে কুমেক ক্যাম্পাসে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়। এদিকে শুক্রবার এ নিয়ে ইন্টার্ন চিকিৎসকরা আনুষ্টানিক কর্মসূচী দেয়ার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত কোন ঘোষণা আসেনি।

জানা যায়, কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের ২য় ব্যাচের ছাত্র হান্নান ও ৮ম ব্যাচের ছাত্র পলাশের নেতৃত্বে কুমেক ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগের রাজনীতি পরিচালিত হয়ে আসছে। গত মঙ্গলবার রাতে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে ওই দু’ গ্রুপে সংঘর্ষ হয়। এতে ৫ জন আহত হন। এ ঘটনায় পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ৩ জনকে আটক করে। পরে প্রাতিষ্ঠানিকভাবে বিচারের আশ্বাসের মাধ্যমে মুচলেকা নিয়ে তাদেরকে ছেড়ে দেওয়া হয়। এদিকে এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার বিকেল কুমেকের এক জরুরী সভায় ৮ শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিস্কার, ৯ ছাত্রকে সতর্ক করে মুচলেকা এবং ৫ ইন্টার্ন ডাক্তারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হাসপাতালের পরিচালককে লিখিতভাবে অবহিত করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

কুমেকের অধ্যক্ষ ডা. মহসিন-উজ-জামান চৌধুরী স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, কলেজ ও হোস্টেল থেকে সাময়িকভাবে বহিস্কৃত ছাত্ররা হচ্ছেন, ওমর ফারুক, রেদোয়ান হোসেন, প্রনব সাহা. হাসিবুল হক অর্নব, মীর তানভীর, রাহুল হাওলাদার, আনোয়ার হোসেন ও এএসএম আবদুল্লাহ।

কোতয়ালী মডেল থানার ওসি আবু ছালাম মিয়া জানান, ছাত্রদের দুই গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। কর্তৃপক্ষ কয়েকজনকে বহিস্কারও করেছে। ক্যাম্পাসে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।


ঢাকা, ০৪ নভেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।