নেপালী মেডিকেল ছাত্রীর শ্লীলতাহানি, আটক শিক্ষক


Published: 2018-09-11 13:57:01 BdST, Updated: 2018-09-19 04:13:22 BdST

সিরাজগঞ্জ লাইভ: মেডিকেল কলেজের এক ছাত্রীর শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠেছে এক চিকিৎসকের বিরুদ্ধে। সিরাজগঞ্জ বেসরকারী নর্থ বেঙ্গল মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক বিভাগের লেকচারার ডা. তুহিনের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগে তাকে আটক করে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

এবিষয়ে জানতে চাইলে নর্থ বেঙ্গল মেডিকেল কলেজের প্রিন্সিপাল প্রফেসর ডা. এসএম আকরাম হোসেন জানান, শিক্ষার্থীর অভিযোগ পাওয়ার পর তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আশা করছি দ্রুততম সময়ের মধ্যে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

থানার ওসি মোহাম্মদ দাউদ জানান, নেপাল থেকে পড়তে আসা সিরাজগঞ্জ বেসরকারী নর্থ বেঙ্গল মেডিকেল কলেজের ৪র্থ বর্ষের এক ছাত্রীর অভিযোগের কারণে তাকে আটক করা হয়।

নেপালী ওই শিক্ষার্থীর অভিযোগ থেকে জানা গেছে, লেখাপড়ার সুবাদে ডা. তুহিন প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন তার সঙ্গে। একপর্যায়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তাকে যৌন নির্যাতন করেন। সম্প্রতি বিয়ের জন্য চাপ দিলে চিকিৎসক তুহিন অস্বীকার করেন।

এ ঘটনার পর রোববার বিকেলে আবারও ওই ছাত্রী ডা. তুহিনের বাড়ি গিয়ে বিয়ের জন্য চাপ দেন। তখনও তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি এমনকি হাতাহাতির ঘটনাও ঘটে।

যৌন হেনস্থার শিকার ওই ছাত্রী আরও জানান, লিখিত অভিযোগ করায় রোববার বিকেলে ডা. তুহিনকে শহরের ধানবান্ধি মহল্লার তার ভাড়া বাসা থেকে আটক করে থানা হেফাজতে রাখা হয়।

 


ঢাকা, ১১ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।