মাদরাসা ছাত্রীকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগ, শিক্ষক পলাতক


Published: 2020-10-01 13:49:21 BdST, Updated: 2020-10-26 19:30:11 BdST

লাইভ প্রতিবেদকঃ সাভারের আশুলিয়ায় মাদরাসার এক শিশু (৮) শিক্ষার্থীকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। এঘটনার পর থেকে মাদরাসায় তালা লাগিয়ে পলাতক রয়েছেন অভিযুক্ত মাদরাসার শিক্ষক আব্দুল আজিজ। মঙ্গলবার গাজীরচট আয়নাল মার্কেট এলাকার দারুল কুরআন নূরানী হাফিজিয়া মডেল মাদরাসায় এই ঘটনা ঘটে।

তবে স্থানীয়দের অভিযোগ, মাদরাসার ভবন মালিক অভিযুক্ত ওই শিক্ষককে পালাতে সহায়তা করেছেন।

ভুক্তভোগী শিশুটির মা জানান, আয়নাল মার্কেট এলাকায় ভাড়া বাসায় থেকে তিনি গার্মেন্টে চাকরি করেন। তার স্বামী পেশায় একজন রিকশাচালক। প্রতিদিনের মতো মঙ্গলবার সকাল ৭টায় তাদের ছোট্ট মেয়েকে ওই মাদরাসায় রেখে কাজে চলে যান তারা। পরে সন্ধ্যায় মেয়েকে বাসায় নিয়ে গেলে ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে অভিযোগ করে সে।

রিকশাচালক বাবা জানান, সন্ধ্যার পর সবার ছুটি হয়ে গেলে তার মেয়েকে চকলেটের প্রলোভন দেখিয়ে নিজ কক্ষে নিয়ে যান শিক্ষক আব্দুল আজিজ। পরে তার মেয়েকে ধর্ষণচেষ্টা করেন ওই শিক্ষক। কিন্তু লোকজনের উপস্থিতি টের পেয়ে শিশুটিকে বাসায় পাঠিয়ে দেন শিক্ষক আজিজ।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে তিনি আরও জানান, ওই মাদরাসা শিক্ষকের কু-কীর্তি জানাজানির পর বাড়িওয়ালা আব্দুর রাজ্জাক ও স্থানীয় মাদবররা অভিযুক্ত শিক্ষককে বাড়ির একটি কক্ষে তালাবদ্ধ করে রাখেন। কিন্তু পরে বাড়ির মালিক তাকে কৌশলে ছেড়ে দেন।

এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ফজর আলী বলেন, এ ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। একই সাথে তাদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা করা হচ্ছে।

ঢাকা, ০১ অক্টোবর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।