ইবি ছাত্রী ভাইভা দিয়ে মানসিক ভারসাম্য হারালো!


Published: 2018-07-10 14:17:41 BdST, Updated: 2018-07-16 10:52:54 BdST

ইবি লাইভ: ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) এক ছাত্রী ভাইভা শেষে মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে ফেলেছে। পাঁচ দিন ধরে সে বিভাগের এক শিক্ষকের নাম নিয়ে অসংলগ্ন অভিযোগ করে যাচ্ছে। ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিভাগের ওই ছাত্রী পরীক্ষায় ফেল এবং এক শিক্ষকের চাপে এমন করছে বলে অভিযোগ উঠে আসছে।

সহপাঠিদের সূত্রে জানা গেছে, গত ৩০শে জুন ইবির ওই ছাত্রী মৌখিক পরীক্ষা দিয়ে হলে ফিরে আসে। ভাইভা বোর্ডে বিভাগের চার জন শিক্ষক উপস্থিত ছিলেন। সেদিন থেকেই সে তার সহপাঠি ও রুমমেটদের সঙ্গে অসংলগ্ন কথাবার্তা বলতে থাকে।

ওই দিন রাত ১২টার দিকে এক সহপাঠিকে ফোন দিয়ে বিভাগের এক শিক্ষকের (নামের প্রথম অক্ষর স) বিরুদ্ধে অভিযোগ করে। সে বলে, ‘তোর কাছে আমি সব ডকুমেন্ট দিয়ে দেবো। স্যার কবে, কোথায় কি করেছে সব বলে দেবো। আমার কাছে প্রমাণ আছে।’ পরে বুধবার রাতে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হলে তাকে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেলে নেয়া হয়।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই সে হলের গেটে সিসি ক্যামেরার সামনে অবস্থান নেয়। দিনভর ওই শিক্ষকের নামে নানান কথা বলতে থাকে। হলের সিসি ক্যামেরার আওতা থেকে কোনভাবেই তাকে সড়ানো যাচ্ছে না। তার দাবি, ‘এখান থেকে অন্যস্থানে গেলে আমার সিকিউরিটি থাকবে না। আমাকে মেরে ফেলবে।’ পরে সন্ধা ৭টার দিকে ইঞ্জেকশন দিয়ে তাকে ঘুম পাড়ানো হয়েছে।

প্রক্টর ড. মাহবুবর রহমান ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, ‘তার অবস্থা খারাপ দেখে ডাক্তার এনে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। রাতে পরিবার থেকে অভিভাবক আসলে তাকে বাড়িতে পাঠানো হবে।’

 


ঢাকা, ১০ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।