হিরো থেকে জিরো : বাসায় নি:স্বঙ্গ সময় কাটে শোভন-রাব্বানীর!


Published: 2019-10-06 01:34:47 BdST, Updated: 2019-10-14 14:41:23 BdST

লাইভ প্রতিবেদক : ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীর নি:সঙ্গ সময় কাটছে। একসময়ের সেই দোর্দন্ড প্রতাপ তাদের আর নেই। নেতাকর্মীরাও তাদের সঙ্গে তেমন একটা যোগাযোগ করেন না। তাদের গাড়ি ঘিরে নেতাকর্মীদের ভীড় আর সেই মোটরসাইকেল বহর আর এখন নেই। ঘনিষ্ট মনে করে ছাত্রলীগে যাদের পদ দিয়েছিলেন তাদের অনেকেই এখন শোভন-রাব্বানীকে পাত্তা দেন না। বাসায় অনেকটা নি:সঙ্গ সময় পার করছেন ছাত্রলীগের ওই দুই সাবেক নেতা। এমনকি বিদেশ সফরের আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বিদায় জানানোর সুযোগও হয়নি তাদের। আওয়ামী লীগসহ সহযোগী সংগঠনের ঘনিষ্ট অনেক শীর্ষ নেতাও তাদের আগের মতো পাত্তা দেন না। অনেকে তাদের ফোনও ধরেন না বলে সূত্র জানিয়েছে। একসময়ের প্রতাপশালী ওই দুই নেতা যেন এখন হিরো থেকে জিরো হয়ে গেছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, পদ হারানোর পর শোভন তার হাতিরপুলের ভূতের গলির সেই বাসায় ফিরে যান। এসময় কিছু নেতাকর্মী শোভনকে দেখে কান্নায় ভেঙে পড়েন। শোভনও কেঁদেছেন অঝোর ধারায়। অন্যদিকে রাব্বানী ফিরে যান হাতিরপুলের বাসায়। সেখানেও তিনি নেতকর্মীদের দেখে কান্নায় ভেঙে পড়েন। তবে ছাত্রলীগের অনেক নেতাই শোভন-রাব্বানীকে এড়িয়ে চলছেন। এর পাশাপাশি পদবঞ্চিত সেই নেতাকর্মীরা অনেকটা প্রকাশ্যে সমালোচনা করছেন তাদের। সম্প্রতি রাব্বানীর ঘনিষ্ট নেতা হিসেবে পরিচিত কেন্দ্রীয় কমিটির প্রচার সম্পাদক শফিকুল ইসলাম রেজার একটি ফেইসবুক পোস্টে রাব্বানীর কমেন্ট নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়।

সূত্রমতে, জয় ও লেখক দায়িত্ব নেয়ার পর থেকেই মূলত শোভন রাব্বানীর পিছে থাকা নেতাকর্মীরা পিছুটান দিয়েছেন। তার বাসায় আর যাননা নেতারা। তাই বাসায় নি:সঙ্গ সময় কাটছে শোভন রাব্বানীর। পদ হারানোর পর শোভন-রাব্বানী মিডিয়াকেও এড়িয়ে চলছেন। বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে তাদের কোন মন্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালের ১১ ও ১২ মে ছাত্রলীগের সম্মেলন শেষ হয়। ৩১ জুলাই আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা শোভনকে সভাপতি ও রাব্বানীকে সম্পাদক করে ছাত্রলীগের কমিটি করে দেন। তবে নানা অভিযোগের প্রেক্ষিতে মেয়াদ শেষ হওয়ার আগেই তাদের বাধ্যতামূলক পদত্যাগ করানো হয় গত ১৪ সেপ্টেম্বর। আল নাহিয়ান খান জয়কে সভাপতি ও লেখক ভট্টাচার্যকে সম্পাকের দায়িত্ব দেয়া হয়। এর পর থেকেই মূলত শোভন রাব্বানীকে ঘিরে নেতাকর্মীদের আগ্রহ কমতে থাকে। অনেক ঘনিষ্ট নেতাও তাদের সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দেন।

ঢাকা, ০৬ অক্টোবর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।