‌‌''মানুষকে অসত্য তথ্য দিয়ে বিভ্রান্ত করবেন না''


Published: 2019-07-20 21:58:43 BdST, Updated: 2019-12-07 07:28:04 BdST

ঢাবি লাইভ: মানুষকে অসত্য তথ্য দিয়ে বিভ্রান্ত না করা, সত্য দিয়েই তর্ক-বিতর্ক করা এবং সমাধানের পথ খোজার আহবান করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসী এবং বায়োমেডিকেল রিসার্স টেকনোলজি বিভাগের অধ্যাপক জনাব আ ব ম ফারুক হোসেন।

শনিবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিক সমিতির কার্যালয়ে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় তিনি,প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের ইঙ্গিত দিয়ে বলেন,
সত্যে আসেন,বিজ্ঞান হলো সত্য।আমরা এমন কিছু বলবনা যেকারণে বিভ্রান্তি ছড়ায়।সত্য কখনো আমাদের বঞ্চনা করেনা।এই সত্যকে অবলম্বন করেই আমাদের মুক্তির দিকে যেতে হবে।সমস্যা দুর করতে হবে।

তরল পদার্থ নিয়ে যে উদ্বেগের সৃষ্টি হয়েছে তা অত্যন্ত সহজভাবে সমাধান করা যায় উল্লেখ করে তিনি বলেন,পাস্তুরাইজেশন ইউনিটে যারা কাজ করে তাদের আরেকটু মটিবেট করা।গরু রোগে আক্রান্ত হবেই। তারা জীবন্ত প্রাণী। তাই তাদের চিকিৎসাও করাতে হবে ।নিয়ম হচ্ছে এন্টিবায়োটিক দেওয়ার পর একটা উইথড্রো পিরিয়ড আছে।ততদিন পর্যন্ত গরুর দুধ পান করা যাবেনা।

এটা খুবই জরুরী।কম পক্ষে একুশদিন গরুর দুধ নেওয়া যাবেনা। গরুকে চিকিৎসার সময় হিউমান এন্টিবায়োটিক দেওয়া যাবেনা।গরুর খাবারে এন্টিবায়োটিক দেওয়া থাকে সেগুলো বিবেচনা করলেই এসব সমস্যার সমাধান হওয়া কঠিন কিছুনা।

উকিল নোটিশের ব্যাপারে তিনি বলেন,আমার কাছে একটি উকিল নোটিশ পাঠানো হয়েছে যাকে লিগ্যাল নোটিশও বলা যায়।আমি এতো বড় লোক নয় বলে কোনো লইয়ার দিয়ে নোটিশ পাঠায়নি।আমি সময়মত সেটার উত্তর দিয়েছি।আমি আমার বিবেকমত যতটুকু বলার আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য ততটুকুই বলেছি।

গবেষণার ব্যাপারে সবাই ইতিবাচক দাবি করে তিনি বলেন,এখন পর্যন্ত আমাদের গবেষণার ব্যাপারে সবার ইতিবাচক সাড়া দেখতে পাচ্ছি।যারা দুএকটা কথা বলে তারা আমাদের সামনে বলেন না।

গবেষণার উদ্দেশ্য সম্পর্কে তিনি বলেন,আমাদের গবেষণা কোনো কোম্পানির বিরুদ্ধে না।বরং আমরা দুধ সেক্টরটাকে উন্নত হিসাবে দেখতে চাই এবং উন্নতমানের দুধ সরবরাহ করা হোক।আমরা যেন মানসম্মত,নিরাপদ দুধ খেতে পারি এটিই আমাদের লক্ষ্য।

ঢাকা, ২০ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪কম)//বিএসসি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।