মেধা, কুইজ কিংবা বিতর্কে আবরার কখনও দ্বিতীয় হতেন না!


Published: 2019-03-20 12:44:32 BdST, Updated: 2019-04-24 10:30:29 BdST

লাইভ প্রতিবেদক : বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালস (বিইউপি) এর ছাত্র আবরার আহমেদ চৌধুরী আর নেই। তবে রয়ে গেছে তার রেখে যাওয়া নান স্মৃতি। সহপাঠী ও স্বজনদের শোকের সাগরে ভাসিয়ে না ফেরার দেশে চলেন গেছেন আবরার। ছাত্র হিসেবে আবরার আহমেদ চৌধুরী যেমন মেধাবী ছিলেন, ব্যক্তি জীবনে ছিলেন চঞ্চলও। ক্যাম্পাসে বিতর্ক প্রতিযোগিতা থেকে শুরু করে কুইজ প্রতিযোগিতা কিংবা খেলাধুলা কিংবা কোনকিছুতেই দ্বিতীয় হতেন না তিনি। সামাজিক নানা আন্দোলনের সঙ্গে সক্রিয় ছিলেন, ছিলেন নিরাপদ সড়কের আন্দোলনেও। সেই আবরারই এখন ইতিহাস হয়ে থাকছেন। তার রক্তে আবার লিখা হচ্ছে আরেকটি ছাত্র বিক্ষোভের ইতিহাস।

এদিকে প্রাণোচ্ছল আবরারকে হারিয়ে নিস্তব্ধতা পুরো বিইউপিতে। শোকাহত সহপাঠী, শিক্ষকেরাও। শোকে পাথর বাবা-মা। ছেলের স্মৃতি হাতড়ান, কেঁদে ওঠেন সঙ্গে সঙ্গে। মেধাবী আবরারের এভাবে চলে যাওয়া মেনে নিতে পারছেন না কেউই।

জানা গেছে, বিইউপির আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের ছাত্র ছিলেন আবরার। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টায় ক্লাস ছিল তার। ক্লাসে যাওয়ার জন্য সকাল সাড়ে ৭টার দিকে নর্দ্দায় যমুনা ফিউচার পার্কের সামনে দাঁড়িয়ে থাকা ক্যাম্পাসের বাস ধরতে চেয়েছিলেন তিনি। জেব্রা ক্রসিং দিয়ে রাস্তা পার হতে গিয়েও চাপা পড়েন বাসে, চাপায় প্রাণ হারান তিনি। শিক্ষক-সহপাঠীরা জানান, আবরার ক্লাসের নানা পরীক্ষা আর ক্যাম্পাসের বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় দ্বিতীয় হতেন না কখনও। মঙ্গলবার বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত হয়েছেন আবরার।

আবরারের শিক্ষক এসিস্ট্যান্ট প্রফেসর শায়লা সুলতানা বলেন, সোমবার দুপুরেও আবরারের সঙ্গে দেখা হয়েছিল আমার। অথচ পরের দিনই সে নেই! এটা মেনে নেওয়া কষ্টকর। এক কথায় মনে রাখার মতো ছাত্র ছিল সে। যেমন পড়াশোনায়, তেমনি আচার-আচরণেও। পড়াশোনার পাশাপাশি খেলাধুলা ও বিতর্ক প্রতিযোগিতাতেও সরব উপস্থিতি ছিল তার।

ঢাকা, ২০ মার্চ (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।