গামছা দিয়ে মুখ বেঁধে গৃহবধুকে ধর্ষণ, কলেজ ছাত্র শ্রীঘরে


Published: 2019-06-21 15:40:49 BdST, Updated: 2019-07-24 07:22:56 BdST

টাঙ্গাইল লাইভ: গৃহবধুকে ধর্ষণ করতে গিয়ে জনতার হাতে আটক কলেজ ছাত্র এখন শ্রীঘরে। টাঙ্গাইলের ভুঞাপুরে এক গৃহবধুকে ধর্ষণের সময় হাতে-নাতে আটক হয়েছে কলেজ ছাত্র মনিরুজ্জামান রনি (২৪)। পরে তাকে পুলিশে সোপর্দ করেছে বিক্ষোব্ধ জনাতা। পৌর এলাকার কুতুবপুর গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। রনি কুতুবপুর গ্রামের ওয়াজেদ আলীর ছেলে। ইব্রাহীম খাঁ সরকারি কলেজে ডিগ্রীতে অধ্যয়নরত।

জানা গেছে, রনি দীর্ঘদিন ধরেই পাশের বাড়ির এক সন্তানের জননীকে কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। এতে সে রাজি না হওয়ায় গভীর রাতে ধর্ষিতার স্বামী ফোন করেছে বলে ঘুম থেকে ডেকে তুলে কৌশলে গামছা দিয়ে মুখ বেঁধে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় পাশে ঘুমিয়ে থাকা শিশু সন্তানসহ ধর্ষিতার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে অভিযুক্ত রনিকে আটক করে বেঁধে রাখে। পরে তাকে পুলিশের হাতে সোপর্দ করা হয়।

ওই গৃহবধূ বাদী হয়ে মনিরুজ্জামান রনিকে আসামী করে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে ভূঞাপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ভূঞাপুর থানার ওসি মো.রাশিদুল ইসলাম জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রনি গৃহবধূকে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে। ধর্ষিতাকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

ঢাকা, ২১ জুন (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

 

 

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।