তিন কলেজছাত্রীর বাসায় ঢুকে শ্লীলতাহানি, আটক ৪


Published: 2019-05-16 16:20:11 BdST, Updated: 2019-05-23 07:52:00 BdST

মৌলভীবাজার লাইভ: তিন কলেজছাত্রীর বাসায় ঢুকে শারীরিক নির্যাতন ও শ্লীলতাহানির অভিযোগের দায়ে চার বখাটেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মৌলভীবাজারে সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। বৃহস্পতিবার তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

আটকরা হলো, শ্লীলতাহানির অভিযোগের দায়ের করা মামলার প্রধান আসামি সদর উপজেলার বড়বাড়ি সোনাপুর এলাকার আজিজুর রহমানের ছেলে সাদনান রহমান নাভেদ (২১), একই এলাকার আব্দুল মতিনের ছেলে ফাহাদ আহমদ মুন্না (২৪), আফতাব উদ্দিনের ছেলে সায়েম আহমদ (২৩) ও রৌশন মিয়ার ছেলে লোকমান আহমদ (২৩)।

মৌলভীবাজার সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. রাশেদুল ইসলাম জানান, তিন ছাত্রীকে নির্যাতনের ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে নারী শিশু নির্যাতন দমন আইন মামলা হয়। সেই মামলায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী তিন ছাত্রীর জবানবন্দি নেয়া হয়েছে।

জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় সোমবার (১৩ মে) রাতে শহরতলীর সোনাপুর এলাকার বাসায় ঢুকে ওই তিন ছাত্রীকে শারীরিক নির্যাতন করে অভিযুক্ত যুবকরা। এ ঘটনায় এক ছাত্রীর ভাই বাদী হয়ে মৌলভীবাজার মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলার এজাহার থেকে জানা যায়, মৌলভীবাজার সরকারি কলেজের দুই ছাত্রী ও মৌলভীবাজার সরকারি মহিলা কলেজের এক ছাত্রী শহরতলীর সোনাপুরে নাভেদদের বাসায় ভাড়া থাকতেন। সেখানে প্রতিদিন নাভেদ ও তার সহযোগীরা তিন ছাত্রীকে নানাভাবে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। এ ঘটনায় সোমবার রাতে ওই ছাত্রীরা প্রতিবাদ জানিয়ে নাভেদের অভিভাবকের কাছে অভিযোগ দিতে যান। ওই সময় নাভেদসহ অভিযুক্ত সায়েম, লোকমান ও মুন্নাসহ আরও ২-৩ জন শারীরিকভাবে ছাত্রীদের লাঞ্ছিত করে। এ বিষয়ে মামলা করলে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেয় তারা।

 

ঢাকা, ১৬ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।