পাবিপ্রবিতে ভর্তি জালিয়াতির দায়ে আটক ৫, মুচলেকায় ছাড়


Published: 2018-12-04 14:22:16 BdST, Updated: 2018-12-13 06:03:37 BdST

পাবিপ্রবি লাইভ: পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (পাবিপ্রবি) ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় মেধা তালিকায় স্থান প্রাপ্তদের সাক্ষাৎকার শুরু হয়েছে। প্রথমদিনের সাক্ষাৎকারে ভর্তি জালিয়াতির দায়ে ৫ ছাত্রকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

পরে তাদের নির্বাহী ম্যাজিস্টেট মাহবুব এর সামনে হাজির করা হয়। তাদের দোষ স্বীকার করায় লিখিত মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি সাক্ষাৎকার শুরু হয়। এ সময় সাক্ষাৎকার বোর্ডে তাদের বিভিন্ন কাগজপত্র ও প্রবেশ পত্র পর্যবেক্ষণ করলে ছবি সহ জালিয়াতি ধরা পরে।

আটকরা হলো, হারুন অর রশিদের ছেলে নাইমুল ইসলাম, জামসেদ আলীর ছেলে উজ্জল মোহাম্মদ, আব্দুল কাদেরের ছেলে রিয়াদুল জান্না রিয়াদ, সাইদুল ইসলামের ছেলে রিফাতুল ইসলাম, লিয়াকত আলীর ছেলে সাগর সরকার। পরে কর্তৃপক্ষ তাদের পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে স্বীকারোক্তি দেওয়ার সময় আটক শিক্ষার্থীরা জানায়, সাড়ে ৩ লক্ষ টাকার বিনিময়ে তারা জালিয়াতি চক্রের মাধ্যমে ভর্তি পরীক্ষার প্রক্সি দেওয়াসহ কাগজ জালিয়াতি করেছে।

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. প্রীতম কুমার দাস ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, লিখিত মুচলেকা নিয়ে অভিভাবকদের নিকট তাদের হস্তান্তর করা হয়। এছাড়া তথ্য প্রমাণের ভিত্তিতে তাদের ভর্তি বাতিল করার জন্য কর্তৃপক্ষের নিকট সুপারিশ জানানো হয়।

 

ঢাকা, ০৪ ডিসেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।