শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে পরীক্ষা স্থগিত করল আইআইইউসি


Published: 2018-05-29 14:44:03 BdST, Updated: 2018-06-20 17:15:29 BdST

আইআইইউসি লাইভ: শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে চলমান মিডটার্ম পরীক্ষা স্থগিত ঘোষণা করেছে আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রাম (আইআইইউসি)। বিশ্ববিদ্যালয়ে গত ২৪ মে থেকে শুরু হয় মিডটার্ম পরীক্ষা।

জানা গেছে, রমজানের রোজা রেখে শিক্ষার্থীদের পরীক্ষায় অংশগ্রহণে অনিচ্ছুক। আপরদিকে প্রচন্ড গরমে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে শিক্ষার্থীরা। পরীক্ষার করণে শিক্ষার্থীদের ইবাদতেও বিরুপ প্রভাব পড়তে শুরু করে।

মঙ্গলবার আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রাম (আইআইইউসি) শিক্ষার্থীরা রমজানে পরীক্ষা না নেওয়ার দাবিতে বিক্ষোভ করছে। সকাল নয়টা থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে শিক্ষার্থীদের অবস্থান নিতে দেখা যায়।

বেলা বাড়ার সাথে সাথে বাড়তে থাকে শিক্ষার্থীদের সংখ্যা। মাত্র অল্প সময়ের মধ্যে শিক্ষার্থীদের অবস্থান শক্ত হতে থাকে। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেইল-ফিমেইল সেকশন পৃথক হয়ে প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান নেয়।

এইসময় শিক্ষার্থীদের রমজানে পরীক্ষা না নেয়ার দাবিতে স্লোগান দিতে দেখা যায়। এর কিছুক্ষণ পর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভিসি দেলোয়ার হোসেন প্রশাসনিক ভবনে উপস্থিত হয়ে সকল ডিপার্টমেন্ট এর চেয়ারম্যান, ডিন ও প্রোক্টরদের সাথে আলোচনায় বসেন।

আলোচনার এক পর্যায়ে আন্দোলনকারীদের মাঝ থেকে ১০জন শিক্ষার্থীকে ছাত্র প্রতিনিধি হিসেবে ডাকা হয়। আলোচনায় ছাত্র প্রতিনিধিরা তাদের যুক্তিক দাবি উপস্থাপন করে এবং মেনে নেয়ার আহ্বান জানান।

দীর্ঘসময় ধরে চলতে থাকা আলোচনা। অবশেষে শিক্ষার্থীদের দাবি আমলে নিয়ে রমজানের সকল পরীক্ষা স্থগিতা ঘোষণা করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রোক্টর মোহাম্মদ কাউসার আহমেদ ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, 'রমজানে সকল পরীক্ষা স্থগিত। রমজানে স্থগিত হওয়া এই পরীক্ষাগুলো ঈদের পর থেকে নেয়া হবে। আগামী সপ্তাহের শনিবার থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ক্লাস হবে।

আন্দোলনে বিশ্ববিদ্যালয়ের সিএসই ডিপার্টমেন্টের এক শিক্ষার্থী ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, 'অসহ্য গরমে রমজানে পরীক্ষা দেয়াটা আমাদের জন্য খুব কষ্টকর হয়ে যাচ্ছে। যা আমাদের পড়াশুনা ও ইবাদতে বিরুপ প্রভাব পড়ছে। যার কারনে আমরা আন্দোলনে নেমেছি'।

'রমজানে পরীক্ষা স্থগিত হয়েছে' বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের এমন সিদ্ধান্তের প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে আন্দোলনে অংশ নেয়া ইএলএল ডিপার্টমেন্টের ছাত্রী সালমা স্মৃতি বলেন, 'আমি অনেক বেশি সন্তুষ্ট কারন পরীক্ষার চাপ নেই। আমরা যথা সময়ে প্রিপারেশন নিয়ে পরীক্ষা দিতে পারবো। রোজার নামাজ, দোয়া, কালামও ঠিকভাবে পালন করতে পারবো।

এদিকে সকাল থেকে শুরু হওয়া আন্দোলনের কারণে সকল ডিপার্টমেন্টের পরীক্ষা বন্ধ থাকলেও বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেক্ট্রনিক্স এন্ড টেলিকমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং (ইটিই) এবং ইলেক্ট্রিক্যাল এন্ড ইলেক্ট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) ডিপার্টমেন্টে যথারীতি পরীক্ষা নিয়েছে বলে জানা যায়।

 


ঢাকা, ২৯ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।