পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ৪২ শিক্ষক নেয়া হচ্ছে


Published: 2019-05-11 13:16:58 BdST, Updated: 2019-07-18 17:52:43 BdST

লাইভ প্রতিবেদক : পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকতার সুযোগ দেয়া হয়েছে। বিভিন্ন বিভাগে অন্ত:ত ৪২ জন শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে। তবে প্রয়োজন অনুযায়ী ওই সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে জানা গেছে। চলুন জেনে নেয়া যাক বিস্তারিত :

লেকচারার নেয়া হবে ১৯ জন।

যোগ্যতা : স্নাতক ডিগ্রি। এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষায় ন্যূনতম জিপিএ ৩ বা তদূর্ধ্ব ফল থাকতে হবে। প্রথম শ্রেণি বা সমমানের গ্রেডপ্রাপ্ত স্নাতকোত্তর ডিগ্রিধারীরা অগ্রাধিকার পাবেন। এ পদের প্রার্থীর বয়স ১৮ থেকে ৩০ বছর। মুক্তিযোদ্ধা কোটার ক্ষেত্রে ১৮-৩২ বছর।

বেতনক্রম : ২২০০০-৫৩০৬০ টাকা।

এসিস্ট্যান্ট প্রফেসর নেয়া হবে ১৩ জন।

যোগ্যতা : পিএইচডি বা সমমানের ডিগ্রি। অথবা এমএস, এমএসসি, এমফিল ডিগ্রিসহ প্রভাষক হিসেবে ২ বছরের শিক্ষকতার অভিজ্ঞতা। স্বীকৃত জার্নালে ২টি গবেষণা থাকতে হবে।

বেতনক্রম : ৩৫৫০০-৬৭০১০ টাকা।

এসোসিয়েট প্রফেসর নেয়া হবে ৫ জন।

যোগ্যতা : পিএইচডি ডিগ্রিসহ কমপক্ষে ৬ বছরের শিক্ষাদানের অভিজ্ঞতা। এসিস্ট্যান্ট প্রফেসর পদে ৪ বছরের অভিজ্ঞতাসহ ৫টি জার্নাল এবং ৩টি গবেষণা থাকতে হবে। অথবা এমএস, এমএসসি, এমবিএ, এমফিল বা সমমানের ডিগ্রিসহ ৭ বছরের শিক্ষকতার অভিজ্ঞতার সঙ্গে এসিস্ট্যান্ট প্রফেসর পদে ৪ বছর, ৭টি জার্নাল ও ৪টি গবেষণা থাকতে হবে।

বেতনক্রম : ৫০০০০-৭১২০০ টাকা।

প্রফেসর নেয়া হবে ৫ জন।

যোগ্যতা : পিএইচডি ডিগ্রিসহ কমপক্ষে ১০ বছরের শিক্ষাদানের অভিজ্ঞতা। এসাসিয়েট প্রফেসর পদে ৪ বছরের অভিজ্ঞতাসহ স্বীকৃত জার্নালে ১০টি গবেষণা থাকতে হবে। অথবা এমএস, এমএসসি, এমবিএ, এমফিল বা সমমানের ডিগ্রিসহ ১১ বছরের শিক্ষকতার অভিজ্ঞতার সঙ্গে এসোসিয়েট প্রফেসর পদে ৪ বছরের শিক্ষাদানের অভিজ্ঞতা এবং স্বীকৃত জার্নালে ১২টি গবেষণা থাকতে হবে।

বেতনক্রম : ৫৬৫০০-৭৪৪০০ টাকা।

আবেদনের শেষ তারিখ : ১৫ মে বিকেল ৫টা।

যোগাযোগ : পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, দুমকি, পটুয়াখালী।

ওয়েব : www.pstu.ac.bd

[সূত্র : ইত্তেফাক, ২৬ এপ্রিল, পৃষ্ঠা ১৬]

ঢাকা, ১১ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//সিএস

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।