ছিনতাইয়ের শিকার রাবি শিক্ষার্থী


Published: 2018-05-16 14:52:26 BdST, Updated: 2018-07-22 06:49:44 BdST

রাবি লাইভ: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) তিন শিক্ষার্থী ছিনতাইয়ের অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার বিকেলে রাবির স্টেশন বাজারে এই ঘটনা ঘটে। ভুক্তোভোগী শিক্ষার্থী মানিক আহমেদ রাজ ও তার দুই বান্ধবি বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগরে প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। মানিক রাবি শাখা ছাত্রলীগের কর্মী।

আর অভিযুক্ত স্থানীয় দুই জন আনিস ও আলিফ। তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টেশন বাজার সংলগ্ন বুধপড়ার বাসিন্দা। স্থানীয় ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জাড়িত।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন স্টেশন বাজারের গেটের সামনে থেকে আলিফ ও আনিস তাদের রাস্তার পাশে ফাঁকা জাইগায় নিয়ে যেতে চাইলে মানিক যেতে অস্বীকার করে। তখন পাশের দোকান থেকে মানিককে কোকাকোলার বতল দিয়ে আঘাত করে। পরে মানিকের ও তার বান্ধবির ২টি ফোন এবং মানিব্যাগে থাকা ৩ হজার টাকা নিয়ে পালিয়ে যায় তারা। তবে বিশ্ববিদ্যালয়ের গেটে অবস্থানরত পুলিশের দাবি ঘটনার সময় ভুক্তভোগীরা কোন অভিযোগ দেয় নি।

এ বিষয়ে মানিক বলেন, ‘স্টেশন বাজারের সিস্টেম (সিক্স আইটেম হোটেলের নাম) এ দুপুরের খাবার খেতে যায়। সেখান থেকে আসার সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টেশন বাজার গেটের সামনে থেকে আলিফ, আলিফসহ বেশ কয়েকজন আমাকে কোকাকোলার বতল দিয়ে মেরে দুইট মোবাইল ও তিন হাজার টাকা ছিনতাই করে পালিয়ে গেছে’।

তবে এই অভিযোগ অস্বীকার করে আলিফ বলেন, ‘মানিকের সাথে কথা বলে পরিচয় জানতে চাইছি। তার কাছ থেকে কোন কিছু নেওয়া হয়নি’।

এদিকে পুলিশের রাবি-১ ঘটনার সময় স্টেশন বাজারের গেটে অবস্থান করছিল। তাদের দাবি দুপুরে যখন তারা স্টেশন বাজার থেকে চলে যায় তখন মানিক ও তার বান্ধবিরা আমাদের কাছে এ বিষয়ে কোন অভিযোগ করে নি।

এ বিষয়ে মতিহার থানার ওসি শাহাদাত হোসেন খান বলেন, ‘ঠিক ছিনতাই না। তাদের মধ্যে কি ঝামেলা হয়েছে তারপরে ধাক্কা-ধাক্কি করে উভয় পক্ষ চলে যায়। তবে এখনো পর্যন্ত কোন অভিযোগ পাওয়া যাইনি’।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর প্রফেসর লুৎফর রহমান বলেন, ‘আমি পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছি দ্রুত অভিযুক্তদের ধরে কঠিন শাস্তি দিতে বলেছি’।


ঢাকা, ১৬ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।