কোটা সংস্কার: হলে ফিরলেন রাবি শিক্ষার্থীরা


Published: 2018-04-09 19:16:29 BdST, Updated: 2018-07-23 03:43:48 BdST

রাবি লাইভ: বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদের প্রতিনিধি দলের সাথে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুসারে হলে ফিরেছেন কোটা সংস্কারারের দাবিতে আন্দোলনরত রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। সোমবার সকাল ৮টায় থেকে বিকেল ৪টায় পর্যন্ত টানা আট ঘন্টা আন্দোলন শেষে তারা ঘরে ফিরে গেছেন।

তবে আশানুরুপ ফল না আসলে আবারও আন্দোলনে বসবেন বলে মন্তব্য করেছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখার কোটা সংস্কার কমিটির আহ্বায়ক মাসুদ মোন্নাফ। গতকাল রবিবার দুপুরে দেশব্যাপী কোটা সংস্কার কর্মসূচির অংশ হিসেবে প্রথমে আন্দোলনে নামেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

এ সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান সড়কের সামনে এসে অবস্থান করেন। সেখানে তারা রাত সাড়ে ৮টায় পর্যন্ত অবস্থান শেষে ফিরে যান।

পরে সোমবার দিবাগত রাত ১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আবু বকর সিদ্দিক নিহত হওয়ার গুজবে বিশ্ববিদ্যালয় শহীদ জিয়াউর রহমান হল থেকে মিছিল বের হয়ে বিশ্ববিদ্যালয় বিনোদপুর হয়ে প্রধান ফটকের সামনে টায়ার জ্বালিয়ে দেড় ঘন্টাধিক অবরোধ কর্মসূচি পালন করতে থাকেন। পরে রাত আড়াইটার দিকে সমন্বয়ক মাসুদ মোন্নাফের বক্তব্যে শিক্ষার্থী নিহত না হওয়ার ঘটনা নিশ্চিত হয়ে ফিরে আসেন শিক্ষার্থীরা।

এদিকে সরাকারী চাকুরিতে বিদ্যমান কোটা পদ্ধতি সংস্কারের মাধ্যমে ৫৬ শতাংশ থেকে নামিয়ে ১০ শতাংশে নামিয়ে আনা সহ ৫ দফা দাবিতে আন্দোলনকারীদের উপর হামলার প্রতিবাদে ক্লাস পরীক্ষা বর্জন করে প্রায় ৮ ঘন্টা ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক অবরোধ করে রাখেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। বেলা ৪টায় কোটা সংস্কার আন্দোলনের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সমন্বয়ক মাসুদ মোন্নাফের বক্তব্যের মাধ্যমে আন্দোলনের সমাপ্তি হয়।

এসময় মাসুদ মোন্নাফ বলেন, ‘আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাথে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের একটি প্রতিনিধি দলের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। আমরা আশা করি আমাদের দাবিগুলো মেনে নেবেন। আমরা সেই সু-সংবাদের আশা করছি।’

এসময় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘কেন্দ্রীয় কমিটির নির্দেশনায় আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছি। কোটা পদ্ধতি সংস্কার না হওয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাব। তবে আজকের মতো এখানেই সমাপ্তি ঘোষণা করছি। এসময় আগামীকাল আবারও ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করা হবে বলে জানান তিনি।

শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর প্রফেসর লুৎফর রহমান বলেন, ‘শান্তিপূর্ণভাবে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন করতে আহ্বান জানিয়েছিলাম। তারা শান্তিপূর্ণ ভাবেই প্রধান ফটকের সামনে অবস্থান নিয়ে আন্দোলন করেছে। অনুরোধের পর বেলা সাড়ে তিনটার দিকে অবরোধ থেকে ক্যাম্পাসে ফিরে আসে শিক্ষার্থীরা।’

 

ঢাকা, ০৯ এপ্রিল (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।