যেভাবে করবেন ইবির ভর্তি আবেদন


Published: 2018-09-15 16:38:50 BdST, Updated: 2018-10-16 01:53:10 BdST

ইবি লাইভ: ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষের ভর্তি আবেদন শুরু হয়েছে। ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি আবেদন শনিবার থেকে শুরু হয়ে চলবে আগামী ১০ অক্টোবর পর্যন্ত। বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) এসএম আব্দুল লতিফ সূত্রটির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

রেজিস্ট্রার অফিস সূত্রে জানা যায়, আগামী ৪ থেকে ৭ নভেম্বর আসন্ন শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এ বছর ৩৩ টি বিভাগে মোট ২ হাজার ২৭৫ জন শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। এছাড়া এবার ভর্তি পরীক্ষা লিখিত ও এমসিকিউ’র সমন্বয়ে অনুষ্ঠিত হবে বলে বিষয়টি নিশ্চিত বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এস এম আব্দুল লতিফ।

শনিবার রাত ১২.০১ মিনিট থেকে ১০ অক্টোবর রাত ১২.০১ মিনিট পর্যন্ত আবেদনের সময় নির্ধারণ করা হয়েছে। ১ জন আবেদনকারী একটি ইউনিটের জন্য শুধুমাত্র ১টি আবেদন করতে পারবে। তবে যোগ্যতা থাকলে একাধিক ইউনিটে আবেদন করতে পারবে। আগামী ১৬ অক্টোবর থেকে ২৮ অক্টোবরের মধ্যে আবেদনকারীরা তাদের প্রবেশপত্র ডাউনলোড করতে পারবে।

যেসকল শিক্ষার্থী ২০১৭-১৮ সনের উচ্চ মাধ্যমিক/সমমানের এবং ২০১২ সন বা তার তৎপরবর্তীতে মাধ্যমিক সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছে কেবলমাত্র তারাই উপরোক্ত ইউনিটসমূহে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহনের জন্য আবেদন করতে পারবে।

অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে হলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট iu.ac.bd/admission অথবা iu.bigmsoft.com এ প্রকাশিত ভর্তি নির্দেশিকা ও নির্দেশিত ধাপসমূহ অনুসরণ করে আবেদন করতে হবে। ডাচবাংলা মোবাইল ব্যাংকিং (রকেট) সেবার মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা ভর্তির আবেদন করতে পারবে। এছাড়া ভর্তি সংক্রান্ত যেকোন তথ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট iu.ac.bd/admission থেকে জানা যাবে।

কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষা কমিটি সূত্রে জানা যায়, এবারের ভর্তি পরীক্ষার নিয়ম পরিবর্তন করে ৮টি ইউনিটের পরিবর্তে ৪টি ইউনিটে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। এ বছর ৫টি অনুষদের অধীনে ৩৩টি বিভাগের ভর্তি পরীক্ষা এ ৪টি ইউনিটে অনুষ্ঠিত হবে। ‘এ’ ইউনিটের অধীনে ধর্মতত্ত¡ ও ইসলামী শিক্ষা অনুষদভূক্ত ৩ বিভাগ, ‘বি’ ইউনিটের অধীনে মানবিক ও সমাজ বিজ্ঞান অনুষদভূক্ত ১০টি বিভাগ এবং আইন ও শরীয়াহ অনুষদভূক্ত ৩টি বিভাগ। ‘সি’ ইউনিটের অধীনে ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদভূক্ত ৬টি বিভাগ। এবং ‘ডি’ ইউনিটে অধীনে ফলিত বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অনুষদভূক্ত ১১টি বিভাগ অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে।

কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষা কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, এবছর ১২০ নম্বরের ভর্তি পরীক্ষায় এমসিকিউ থাকবে ৬০ নম্বর, লিখিত সংক্ষিপ্ত প্রশ্নের উত্তর ২০ নম্বর এবং এসএসসি-এইচএসসিতে প্রাপ্ত জিপিএ’র ভিত্তিতে (২০+২০) ৪০ নম্বর।

জানা যায়, ইউনিট প্রতি ফি ২০০ টাকা এবং ইউনিটে প্রতিটি বিভাগের জন্য আরো ১০০ টাকা করে জমা দিতে হবে। সে অনুযায়ী ‘এ’ ইউনিটে ৩ বিভাগের জন্য ৫০০ টাকা, ‘বি’ ইউনিটে ১৩টি বিভাগের জন্য ১৫০০ টাকা, ‘সি’ ইউনিটে ৬ টি বিভাগে জন্য ৮০০ টাকা এবং ‘ডি’ ইউনিটে ১১টি বিভাগের জন্য ১৩০০ টাকা নির্ধারন করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষা কমিটির সর্বশেষ বৈঠকে আল ফিকহ এন্ড লিগ্যাল স্টাডিজ এবং আরবী ভাষা ও সাহিত্য বিভাগকে ‘বি’ ইউনিটেই রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে আল ফিকহ বিভাগে ভর্তিতে ৫০ শতাংশ মাদ্রাসা (দাখিল অথবা আলিম) ও ৫০ শতাংশ কলেজের শিক্ষার্থী থেকে নেয়া হবে। এছাড়া আরবী ভাষা ও সাহিত্য বিভাগে ভর্তির ক্ষেত্রে মাধ্যমিক ও উ”চ মাধ্যমিক পর্যায়ে আরবী অথবা ইসলামিক স্টাডিজ কোর্স থাকতে হবে।

এদিকে ভর্তি পরীক্ষায় প্রথমবারের মত সন্নিবেশিত ২০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষায় পৃথকভাবে পাশ করতে হবে। এক্ষেত্রে এমসিকিউ ও লিখিত উভয় অংশে ৩৩ শতাংশ নম্বর পেতে হবে। পৌষ্য ও খেলোয়াড় কোটায় ভর্তির ক্ষেত্রে সর্বনিম্ন ৩৩ শতাংশ নম্বর পেতে হবে। এছাড়া এমসিকিউতে প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য ২৫% করে কাটা যাবে।

 

 

ঢাকা, ১৫ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।