এআই টিমের ৩০ সদস্যকে সনদ বিতরণ


Published: 2019-07-02 21:25:35 BdST, Updated: 2019-07-20 22:43:25 BdST

আইটি লাইভ: প্রযুক্তি ভিত্তিক বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান ইজেনারেশন লিমিটেড ডাটা সায়েন্স এবং আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স (এআই) পেশাজীবী টিম তৈরি করেছে। বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল পরিচালিত এলআইসিটি প্রকল্পের সহায়তায় এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএমআইএসের সাথে অংশীদারিত্বে পেশাজীবী টিমটি তৈরি করা হয়েছে।

এআই এর পেশাজীবী টিমের ৩০ জন সদস্যকে সনদ প্রদান করা হয়েছে। গুলশান প্রধান কার্যালয়ে প্রশিক্ষণের সনদপত্র বিতরণ করা হয়। দেশি এবং বিদেশি প্রশিক্ষকদের মাধ্যমে আধুনিক ডাটা সায়েন্স প্রযুক্তি বিষয়ে প্রশিক্ষণ নিয়ে টিমটি বিভিন্ন ডাটা ওয়্যারহাউজিং, ডাটা মডেলিং, ডাটা অ্যানালিটিক্স এবং ভিজ্যুয়ালাইজেশন নিয়ে রিয়েল-টাইম প্রজেক্ট বাস্তবায়ন করেছে।

অত্যাধুনিক প্রযুক্তি যেমন ডাটা অ্যানালাইটিক্স, মেশিন লার্নিং, আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স, ব্লকচেইন, ডিজিটাল প্লাটফর্ম এবং ইন্টারনেট অব থিংকস (আইওটি) নিয়ে কাজ করা ইজেনারেশন বাংলাদেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় প্রতিষ্ঠান।

উক্ত অনুষ্ঠানে এলআইসটি প্রকল্প পরিচালক মো. রেজাউল করিম এনডিসি, ইজেনারেশনের চেয়ারম্যান শামীম আহসান, ইজেনারেশন লিমিটেডের নির্বাহী ভাইস চেয়ারম্যান এস.এম আশরাফুল ইসলাম প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের হাতে সনদপত্র তুলে দেন। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ডাটা সায়েন্স অ্যাডভাইজর এ. কে. ফয়েজ উল্লাহ এবং ইজেনারেশনের হেড অব অপারেশন এমরান আবদুল্লাহ।

ইজেনারেশনের চেয়ারম্যান শামীম আহসান জানান, আইসিটি ডিভিশন এবং ওয়ার্ল্ড ব্যাংকের সাথে অংশীদারিত্বে আমরা ডাটা সায়েন্স এবং এআই বিষয়ে উচ্চ দক্ষতাসম্পন্ন টিম তৈরি করেছি। গত ছয় মাস ধরে টিমটি সরকারি, ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং, টেলিকম, ফার্মাসিউটিক্যালস এবং ম্যানুফ্যাকচারিং খাতে কাজ করেছে।

ইজেনারেশন লিমিটেডের নির্বাহী ভাইস চেয়ারম্যান এস.এম আশরাফুল ইসলাম জানান, ২০০৩ সালে যাত্রা শুরুর পর থেকেই ইজেনারেশন ধারাবাহিকভাবে প্রশিক্ষণের ক্ষেত্রে ভূমিকা রেখে আসছে। স্থানীয় উদ্যোক্তা তৈরির পরিবেশ, আন্তর্জাতিকভাবে উদীয়মান প্রযুক্তি এবং আউটসোর্সিং এ ভূমিকা রাখে এমন যেকোনো দক্ষতা উন্নয়নে আমরা কাজ করছি।

নতুন এবং উদীয়মান প্রযুক্তিতে পরিবর্তন ব্যবসায়ের ক্ষেত্রে বড় সুযোগ এবং ঝুঁকি তৈরি করে। এই কারণে আগামীর নেতৃত্ব যাতে সুযোগকে কাজে লাগাতে এবং ঝুঁকিকে বাড়তে না দেয় সেই প্রশিক্ষণ দেয়া প্রয়োজন। আমরা নিশ্চিত যে এফটিএফএল গ্রাজুয়েটরা পেশা অর্থবহ এবং শ্রেষ্ঠতর হওয়ার ক্ষেত্রে প্রেরণা হবে।

এলআইসিটি প্রকল্প পরিচালক মো. রেজাউল করিম এনডিসি বলেন, তথ্যপ্রযুক্তি খাতের উন্নয়নে সবচেয়ে বড় প্রতিবন্ধকতা হলো দক্ষ মানবসম্পদের অভাব। তাই এই খাতে কমপক্ষে ৩৪ হাজার দক্ষ জনবল তৈরিতে কাজ করছে এলআইসিটি প্রকল্প।


ঢাকা, ০২ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।